সংবাদ শিরোনাম

পণ্যবাহী ট্রাক-মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-১খালেদার জিয়ার শারীরিক অবস্থার উন্নতি নেই, হয়নি বিদেশ যাওয়ার সিদ্ধান্তওপ্রধানমন্ত্রী কোরআন-সুন্নাহর বাইরে কিছু করেন না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীমির্জাপুরে গণহত্যা দিবস উপলক্ষে মোমবাতি প্রজ্জ্বলনশনিবার থেকে ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনাস্পুটনিক-৫ টিকা একে-৪৭’র মতো নির্ভরযোগ্য: পুতিনডোপটেস্টো রিপোর্ট: স্পিডবোটের চালক শাহ আলম মাদকাসক্তচাঁদপুরে ঐতিহাসিক বড় মসজিদে লক্ষাধিক মুসল্লির সালাতে ‘জুমাতুল বিদা’ রাঙামাটিতে ডিবির অভিযানে ইয়াবাসহ দুই চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী আটক! আনসার ব্যাটালিয়ান সদস্যদের সঙ্গে স্থানীয়দের সংঘর্ষ : নারীসহ ৯জন আহত

  • আজ ২৫শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

হাবিবুর রহমান মিছবাহ’র মাহফিলে লাখো মানুষের ঢল

৭:৩৬ অপরাহ্ন | শনিবার, ডিসেম্বর ২৮, ২০১৯ ঢাকা
mis

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্কঃ আলোচিত বক্তা মুফতি হাবিবুর রহমান মিছবাহর মাহফিলে শ্রোতার ঢল নামছে। মিডিয়ায় তেমন প্রচার না হলেও জনশ্রুতি রয়েছে, হাবিবুর রহমান মিছবাহ’র মাহফিল মানেই হাজার হাজার মুসুল্লীর উপচে পড়া ভিড়।

শনিবার কনকনে শীতের মধ্যেই ফজর ও জোহরের পর চাঁদপুর ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মুফতি হাবিবুর রহমান মিছবাহর মাহফিলে লাখো মানুষের ঢল নেমেছে।

কর্তৃপক্ষ জানায়, মুফতী হাবিবুর রহমান মিছবাহ চাঁদপুরে আগমন করলে লোক সামাল দিতে হিমশিম খেতে হয়। তিনি দেশের জনপ্রিয় ও তাত্ত্বিক আলোচক হওয়ায় সকল শ্রেণীপেশার মানুষের কাছে সমাদৃত।

মাহফিলে আগত মুসুল্লীদের মন্তব্য, এদিন চাঁদপুরে লক্ষাধিক মানুষের সমাগম ঘটেছে। চাঁদপুর পুরানবাজার মধুসূদন হাইস্কুল ময়দানে বিশাল তাফসির মাহফিলে ফজরের পর প্রধান অতিথির আলোচনা করেন সময়ের আলোচিত এ বক্তা।

জানা যায়, অতি ভোরে কনকনে শীত উপেক্ষা করে হাজার হাজার মুসুল্লী মুফতি হাবিবুর রহমান মিছবাহ’র বয়ান শুনতে ফজরের আগেই সম্মেলনস্থলে উপস্থিত হন।

মহিলা প্যান্ডেলেও প্রায় লক্ষাধিক মুনাজাতে অংশগ্রহণ করেন। পুরুষদের বিশাল প্যান্ডেল কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে চাঁদপুরের পুরানবাজার লোকারণ্য হয়ে যায়।

ফজরের নামাজের পর মুফতি হাবিবুর রহমান মিছবাহ বয়ান শুরু করেন এবং আলোচনা শেষে আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করেন।

বয়ান ও মুনাজাতে ময়দানজুড়ে কান্নার রোল পড়ে। এ সময় আমীন আমীন ধ্বনিতে মুখরিত হয়ে ওঠে চাঁদপুর এলাকা।
একই দিন দুপুর আড়াইটায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলার সৈয়দাবাদ জামিয়া ছানী ইউনুছিয়া মাদরাসার মাহফিলেও একই দৃশ্য দেখা যায়।

মাহফিলের আয়োজক মাওলানা কামাল উদ্দীন দায়েমী বলেন, মুফতি হাবিবুর রহমান মিছবাহ আমাদের মাহফিলে জোহরের পর বয়ান করেন। ভরদুপুরে এ অঞ্চলে মাহফিলের প্রচলন না থাকলেও তার আগমনে লোকে লোকারণ্য হয়ে যায় মাদরাসা ময়দান।