চায়ের দোকানে ‘বিপিএল জুয়া’, গ্রেফতার ৮৯

⏱ | শনিবার, জানুয়ারী ৪, ২০২০ 📁 রংপুর

ফয়সাল শামীম, ষ্টাফ রিপোর্টার: কুড়িগ্রামের প্রত্যন্ত এলাকার হাটবাজারের চায়ের দোকানগুলোতে বিপিএল ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে টাকার বিনিময়ে জুয়া খেলার ধুম পড়েছে। এভাবে জুয়া খেলার সময় সদর, উলিপুর ও নাগেশ্বরী উপজেলা থেকে ৮৯ জনকে গ্রেফতার করেছে ডিবি ও সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশ।

শুক্রবার রাতে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এরপর তাদের বিরুদ্ধে জুয়া আইনে মামলা দায়ের করে শনিবার (৪ জানুয়ারি) আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

জেলা পুলিশ অফিস সূত্রে জানা গেছে, উলিপুর থানা পুলিশ হাতিয়া ইউনিয়নের চৌমুহনী বাজার, ধামশ্রেনী ইউনিয়নের ইন্দিরারপাড় ও পৌরসভার কাজিরচক এলাকায় চায়ের দোকানে বিপিএল ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে ৩৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

এছাড়া সদর থানার কাঁঠালবাড়ী ইউনিয়নের কুয়েত পল্লীর মোড় এলাকার চায়ের দোকান থেকে ১৮ জনকে এবং মোগলবাসা ইউনিয়নের মোগলবাসা বাজার এলাকা থেকে ৫ জন ও পার্শ্ববর্তী এলাকার চায়ের দোকান থেকে ৫ জনকে জুয়া খেলার সময় গ্রেফতার করা হয়। একইভাবে নাগেশ্বরী উপজেলার হাসনাবাদ ইউনিয়নের মনিয়ারহাট ও কান্দুরারহাট এরং রামখানা ইউনিয়নের দীঘিরপাড় এলাকা থেকে ৯ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

এদিকে উলিপুর উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের ময়নারবাজার এলাকার মনোয়েম (৩৮)সহ তার চায়ের দোকান থেকে ১৯ জনকে গ্রেফতার করেছে ডিবি পুলিশ। গ্রেফতারকৃত অন্যরা হলেন-সিরাজুল ইসলাম (৪৮), অনুকূল চন্দ্র (২৫), আবুল হোসেন (৪৫), গৌরাঙ্গ চন্দ্র (৩৮), আবু তালেব (১৯), শহীদুল ইসলাম (৪০), স্বপন কুমার (২৩), মিজানুর (২০), আল আমিন (১৯), সঞ্জয় কুমার (২৫), দিলীপ কুমার (২৮), সুখচরণ (২৫), রিপন চন্দ্র (২০), কমলেশ বর্মন (৪৮), মামুনুর রশীদ (২৫), মনছুর আলী (৪৫), আবু মালেক লিটন (২৫) ও মমিনুল ইসলাম মমিন (২৮)।

এ প্রসঙ্গে ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. মেনহাজুল আলম বলেন, ৮৯ জনকে বিপিএল ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে জুয়া খেলায় লিপ্ত থাকায় জেলার বিভিন্ন জায়গা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়াও জুয়াসহ সকল ধরণের অনৈতিক কর্মকাণ্ড বন্ধে পুলিশের সাঁড়াশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

সময়ের কণ্ঠস্বর/ফয়সাল