ইজতেমা ময়দানে দুই মুসল্লির মৃত্যু

tea
❏ শুক্রবার, জানুয়ারী ১০, ২০২০ ইসলাম

ইসলাম ডেস্কঃ টঙ্গীর তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমায় অংশ নেয়া দুই মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৯ জানুয়ারি) রাতে তাদের মৃত্যু হয়। জানা গেছে, বার্ধক্যজনিত কারণে তারা মারা যান। ইজতেমা ময়দানের কন্ট্রোল রুমে মিডিয়া সেলের দায়িত্বপ্রাপ্ত গাজীপুর মহানগর পুলিশের উপ-কমিশনার মো. মনজুর রহমান তথ্যটি নিশ্চিত করেন।

মৃত মুসল্লিরা হলেন- সিরাজগঞ্জের কাজীপুর থানার পাটগ্রাম এলাকার আমির শেখের ছেলে খোকা মিয়া (৬০) রাত ৯টার দিকে হৃদরোগে এবং মধ্যরাতে চট্টগ্রামের পটিয়া থানার খৈগ্রাম এলাকার মোহাম্মদ আলী (৭০) বার্ধক্যজনিত রোগে মারা যান।

এর আগে সকালে বিশ্ব ইজতেমায় যোগ দিতে আসা ইয়াকুব আলী (৮৫) নামে এক মুসল্লি মারা যান। তিনি গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া থানার নাখিলপাড়া এলাকার হাশেম আলীর ছেলে।

মরদেহের জিম্মাদার আদম আলী জানান, রাত ১০টার দিকে ২৬ নম্বর খিত্তায় খোকা মিয়া ও রাত ১টার দিকে মোহাম্মদ আলী মারা যান। তারা দু’জন বার্ধক্যজনিত কারণে মারা গেছেন।

আজ থেকে শুরু হওয়া ইজতেমা চলবে ১২ জানুয়ারি পর্যন্ত। রাজধানীর কাকরাইল জামে মসজিদের ইমাম মাওলানা জোবায়ের আহমেদের অনুসারী মুসল্লিরা এ বিশ্ব ইজতেমায় অংশ নেবেন। ১২ জানুয়ারি রোববার দুপুরে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে ইজতেমা। ১৩ জানুয়ারি সকালের মধ্যে ময়দান ত্যাগ করবেন মুসল্লিরা। পরে মাওলানা

সাদ পন্থী অনুসারী মুসল্লিরা আগামী ১৭ জানুয়ারি শুক্রবার বাদ ফজর থেকে শুরু হওয়া ইজতেমায় অংশ নেবেন। ১৯ জানুয়ারি দুপুরে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে ২০২০ সালের বিশ্ব ইজতেমা।

মুসল্লিদের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়ে ময়দানে স্থান সংকুলান না হওয়ায় ২০১১ সাল থেকে টঙ্গীতে বিশ্ব ইজতেমা তিনদিন করে দুই পর্বে অনুষ্ঠিত হয়। তবে ২০১৮ সালে মুসল্লিদের দুই পক্ষের বাদানুবাদ ও সংঘর্ষের ঘটনার পর আলাদাভাবে দুই গ্রুপ ইজতেমার আয়োজন করছে।