সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

আলোকসজ্জা দেখতে গিয়ে লাশ হলেন দুইবোন ও ভাবি

১১:২৫ পূর্বাহ্ণ | শনিবার, জানুয়ারি ১৮, ২০২০ খুলনা, দেশের খবর

সময়ের কণ্ঠস্বর, যশোর: যশোরে প্রাইভেটকার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একই পরিবারের তিনজন নিহত হয়েছেন। এ দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন শিশুসহ আরও দুইজন।

শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) দিনগত রাত ১টার দিকে যশোর শহরের বিমান অফিস মোড় এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। হতাহতরা সবাই গাড়িটির যাত্রী ছিলেন।

নিহতরা হলেন- যশোর শহরের লোন অফিস পাড়ার শফিকুল ইসলামের স্ত্রী ডা. তনিমা ইয়াসমিন পিয়াশা (২৫), শহরের আর. এন রোড এলাকার সুমন ইসলামের স্ত্রী তানজিলা ইয়াসমিন ইয়াশা (২৮), একই এলাকার মনজুর হোসেনের স্ত্রী তিথী (৩২)।

নিহতদের মধ্যে ডা. তনিমা ইয়াসমিন পিয়াশা ও তানজিলা ইয়াসমিন ইয়াশা আপন বোন এবং তিথী তাদের ভাইয়ের স্ত্রী। এছাড়া আহতরা হলেন- নিহত তিথীর শিশু সন্তান মনিরুল ইসলাম (৪) ও নিহতদের নিকটাত্মীয় হৃদয় (৩০)।

পিয়াসার মামা শাহিনুর রহমান ঠাণ্ডু সাংবাদিকদের জানান, শহরের লোনঅফিসপাড়া এলাকার ব্যবসায়ী শফিকুল ইসলাম জ্যোতির সঙ্গে আদদ্বীন সখিনা মেডিক্যালের চতুর্থ বর্ষের ছাত্রী তনিমা ইয়াসমিন পিয়াসার দেড় বছর আগে বিয়ে হয়। আগামী ২৩ জানুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে পিয়াসাকে তাদের তুলে নেওয়ার কথা। সে জন্য জ্যোতির বাড়িতে আলোকসজ্জা করা হয়। পিয়াসা রাতে ফোন করে জ্যোতিকে জানান, তারা আলোকসজ্জা দেখবেন এবং শহর ঘুরবেন।

এ কারণে শুক্রবার রাত ১০টার দিকে জ্যোতি তার নিজস্ব মাইক্রোবাস (নোয়া) নিয়ে বের হন। গাড়িতে পিয়াসার বোন তানজিলা, খালাত ভাইয়ের স্ত্রী আফরোজা তাবাসসুম তিথী, তার মেয়ে মানিজুর এবং জ্যোতির দুই বন্ধু হৃদয় ও শাহিন ছিলেন। তারা রাতে আলোকসজ্জা দেখে শহরে তাদের স্বজনদের দাওয়াত দিয়ে রাত সাড়ে ১২টার দিকে শহরের পালবাড়ি এলাকা থেকে বাড়ির দিকে যাচ্ছিলেন। ফেরার পথে রাত সাড়ে ১২টা থেকে ১টার মধ্যে যশোর শহরের পুরাতন কসবা শহীদ মসিয়ূর রহমান সড়কের (আকিজের গলি) পাশে থাকা একটি বিল্ডিংয়ের প্রাচীর ও বিদ্যুতের খাম্বায় সজোরে আঘাত করে মাইক্রোবাসটি। এতে ঘটনাস্থলেই তিনজন মারা যান। গাড়িতে থাকা অন্যরা কমবেশি আহত হন।

যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল কর্মকর্তা ডা. কাজল কান্তি মল্লিক জানান, নিহত ডা. তনিমা ইয়াসমিন পিয়াশা এমবিবিএস কোর্স সম্পন্ন করে যশোর আদ-দ্বীন হাসপাতালে কর্মরত ছিলেন। নিহতদের মরদেহ হাসপাতাল মর্গে রয়েছে।

Loading...