• আজ সোমবার, ১৮ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ২ আগস্ট, ২০২১ ৷

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধে নির্দেশনায় প্রধানমন্ত্রীকে আহ্বান

ban
❏ সোমবার, মার্চ ১৬, ২০২০ আলোচিত বাংলাদেশ

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্কঃ করোনাভাইসার থেকে নিরাপদে রাখতে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের দাবি জানিয়েছেন দেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের নেতৃত্বদানকারী সংগঠন বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশন।

রোববার বিকেলে সংগঠনের সভাপতি অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল ও মহাসচিব অধ্যাপক ড. মো. নিজামূল হক ভূইয়া স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ দাবি জানিয়েছে তারা।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) বিশ্বজুড়ে মহামারি রূপ নিয়েছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনা ভাইরাসকে প্যানডেমিক হিসেবে ঘোষণা করেছে। ইতোমধ্যে ১৫০টি দেশে করোনা ভাইরাস বিস্তার লাভ করেছে। পৃথিবীর বহু রাষ্ট্রের সরকার পরিচালনার দায়িত্বে নিয়োজিত গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গ এ ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার খবর প্রকাশিত হয়েছে।

স্বাস্থ্য সংক্রান্ত সতর্কতার অংশ হিসেবে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে জনসমাগম, ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ বন্ধ করা হয়েছে। এমনকি কোনো কোনো দেশে রাষ্ট্রীয় জরুরী অবস্থা জারি করা হয়েছে। পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার করোনা ভাইরাসের বিস্তারকে বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে ‘বিপর্যয়’ হিসেবে ঘোষণা করেছে। পশ্চিমবঙ্গসহ ভারতের বিভিন্ন প্রদেশের এবং শ্রীলঙ্কার সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ইতোমধ্যে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

শিক্ষক নেতারা বলেন, করোনায় সংক্রমিত রোগী সনাক্ত হওয়ার পর থেকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ সাময়িকভাবে বন্ধ করার বিষয়ে একটি সম্মিলিত জনমত সৃষ্টি হয়েছে। ইতোমধ্যে বাংলাদেশে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে প্রায় আড়াই হাজার মানুষকে সঙ্গরোধ (কোয়ারেন্টাইন) ব্যবস্থায় রাখা হয়েছে।

গুরুতর এ পরিস্থিতিতে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অনতিবিলম্বে সাময়িকভাবে বন্ধ ঘোষণা অথবা গ্রীষ্মকালীন ছুটি নির্ধারিত সময়ের আগে কার্যকরে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়কে নির্দেশনা দেওয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আহ্বান জানান তারা।

এদিকে করোনাভাইরাস থেকে শিক্ষার্থীদের নিরাপদে রাখতে রাজধানীর বেশ কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। কয়েকটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ক্লাস বর্জন করার ঘোষণা দিয়েছেন। তবে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধে সরকারের পক্ষ থেকে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন