• আজ শুক্রবার, ২২ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ৬ আগস্ট, ২০২১ ৷

আটকে রেখে ষষ্ঠ শ্রেণির মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণ, লম্পট আটক


❏ সোমবার, মার্চ ১৬, ২০২০ খুলনা, দেশের খবর

মহসিন মিলন, বেনাপোল প্রতিনিধি- যশোরের কেশবপুর উপজেলায় ষষ্ঠ শ্রেণির এক স্কুল ছাত্রীকে বাড়িতে আটকে রেখে শনিবার জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে কেশবপুর থানায়।

মামলার পর রোববার রাতে ধর্ষক আবু সাঈদ (২৫) নামে এক লম্পটকে আটক করেছে পুলিশ। আজ সকালে মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

থানা পুলিশ জানায়, কেশবপুর উপজেলার শ্রীফলা গ্রামের মোস্তফা সরদারের ছেলে আবু সাঈদ গত ১৪ মার্চ সন্ধ্যার দিকে ১২ বছর বয়সী ওই ছাত্রীকে ফুঁসলিয়ে তাদের বাড়িতে নিয়ে ঘরের মধ্যে আটকে রাখে। বাড়িতে কেউ না থাকায় তাকে জোরপুর্বক ধর্ষণ করা হয়। ঘটনার পর বাড়ি ফিরে জানালে রোববার বিকেলে ছাত্রীর মা কেশবপুর থানার সাঈদকে আসামি করে অভিযোগ দাখিল করেন।

থানা পুলিশ প্রাথমিক তদন্তে ঘটনার সত্যতা পাওয়ার অভিযোগটি ওই রাতেই মামলা হিসেবে গ্রহণ করা হয়। ১৫ মার্চ রাতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত ধর্ষক আবু সাঈদকে তার বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে। ভিকটিম স্থানীয় একটি মাদরাসায় ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী।

কেশবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জসিম উদ্দীন বলেন, ১২ বছরের মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগে রোববার রাতে সাঈদ নামে এক যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে। আদালতের মাধ্যমে তাকে জেলহাজতে পাঠানো হবে।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন