• আজ মঙ্গলবার, ১২ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ২৭ জুলাই, ২০২১ ৷

ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানি করে বিপাকে হিলির ব্যবসায়ীরা


❏ মঙ্গলবার, মার্চ ১৭, ২০২০ দেশের খবর, রংপুর

মোঃ আব্দুল আজিজ, হিলি প্রতিনিধি- দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর হিলি স্থলবন্দর শুরু হয়েছে ভারত থেকে পেঁয়াজ আমদানি। ভারত থেকে পেঁয়াজ আমদানি হওয়ায় হিলি স্থলবন্দরে কমেছে পেঁয়াজের দাম।

যখন দেশী পেঁয়াজের সরবরাহ বেশি ঠিক তখন ভারতীয় পেঁয়াজের আমদানি হওয়ায় পেঁয়াজ নিয়ে বিপাকে পড়েছেন আমদানিকারকরা। পেঁয়াজ আমদানির ফলে স্থানীয় বাজারে এক লাফে ৫০ থেকে ৩০ টাকা কেজিতে নেমে এসেছে পেঁয়াজের দাম। দাম কমায় স্বস্তিতে সাধারণ ক্রেতারা।

পেঁয়াজ ব্যবসায়ীরা জানান, আমদানি শুরু হওয়ায় স্থানীয় বাজার গুলোতে কমতে শুরু করেছে পেঁয়াজের দাম। গত দুই দিন আগে খুচরা বাজারে যে পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছে ৫০ থেকে ৬০ টাকা কেজি দরে সেই পেঁয়াজ এখন বাজারে বিক্রি হচ্ছে ২৮ থেকে ৩০ টাকা কেজিতে।

পেঁয়াজ কিনতে আসা সালমান মাহমুদ জানান, পেঁয়াজের দাম কমতে শুরু করায় আজ ৫ কেজি পেঁয়াজ কিনলাম।দাম কমার কারনে আমরা ক্রেতারা অনেক খুশি।

হিলি স্থলবন্দরের পেঁয়াজ আমদানিকারক লাবু মল্লিক জানান, যখন দেশের বাজারে দেশীয় পেঁয়াজের পর্যাপ্ত সরবরাহ থাকায় ভারতীয় পেয়াঁজ আমদানি করে ক্রেতা সংকটে বিপাকে পড়েছেন আমদানিকারক ব্যবসায়ীরা। আমদানি বেশি হলে দাম আরও কমবে।

পেঁয়াজ আমদানী কারক নাজমুল হোসেন জানান, এই বন্দর দিয়ে ৩ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমদানির পারমিট পেলেও অন্যান্য ব্যবসায়ী পেঁয়াজ আমদানির জন্য পারমিট না পওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করে তারা। দুই একজন ব্যবসায়ী পারমিট পাওয়ায় পেঁয়াজের বাজারে সিন্ডিকেট হতে পারে বলে জানান তিনি।

হিলি কাষ্টমস তথ্যমতে, দুই কর্মদিবসে ভারতীয় ৪৫ ট্রাকে ৯২৮ মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমদানি হয়েছে এই বন্দর দিয়ে।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন