ওষুধ কোম্পানিতে চাকরি করেই আ. ছালাম ‘বিশেষজ্ঞ ডাক্তার’!

৫:৩১ অপরাহ্ণ | শনিবার, মার্চ ২১, ২০২০ দেশের খবর, বরিশাল

জাহিদ রিপন, পটুয়াখালী প্রতিনিধি- র‌্যাব-৮ সিপিসি-১ পটুয়াখালী ক্যাম্প’র একটি বিশেষ আভিযানিক দল শুক্রবার (২০ মার্চ) বিকালে পটুয়াখালীর মহিপুর থানাধীন আলীপুর কলেজ রোড এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে এসএম আ. ছালাম নামে এক ভুয়া ডাক্তারকে আটক করেছে।

কোম্পানী অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. রইছ উদ্দিন এর নেতৃত্বে পরিচালিত অভিযানে আটক ভুয়া ডাক্তার এসএম আ. ছালাম (৫১)। তিনি খুলনার বটিয়াঘাটা থানার সুরখালি ইউনিয়নের গাওঘোরা গ্রামের মৃত শেখ আ. লতিফের  পুত্র।

অভিযানকালে কুয়াকাটা ২০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালের মেডিক্যাল অফিসার জনাব ডাঃ আরিফুর রহমান উপস্থিত থেকে আটককৃত ব্যক্তিকে ভুয়া ডাক্তার হিসেবে সনাক্ত করেন।

র‌্যাব সূত্র জানায়, আটককৃত এসএম আ. ছালাম খুলনা বি এল কলেজ থেকে অর্থনীতিতে মাস্টার্স করে দীর্ঘ ১৩ বছর রেনেটা নামক ওষুধ কোম্পানিতে এরিয়া ম্যানেজার হিসেবে চাকরি শেষে বিগত ৭ বছর যাবত বিশেষজ্ঞ ডাক্তার হিসেবে চিকিৎসা করে আসছেন। তিনি পটুয়াখালীর মহিপুর লতাচাপলী ইউনিয়নের মিশ্রিপাড়া গ্রামে বসবাস করছেন।

এসএম আ. ছালাম চিকিৎসা শাস্ত্রে কোন প্রকার পেশাধারী ডিগ্রী অর্জন না করেও নিজেকে একজন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন ধরনের জটিল ও কঠিন রোগের চিকিৎসা করে থাকেন।

কোম্পানী অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. রইছ উদ্দিন জানান, আটককৃত ব্যক্তিকে মহিপুর থানায় হস্তান্তর করা হয়। এ ব্যাপারে র‌্যাব বাদি হয়ে ধৃত ভুয়া ডাক্তারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।