সংবাদ শিরোনাম
মহানবী (সা.) কে অবমাননা: ফ্রান্সের পণ্য বয়কট করল কুয়েত | রায়হান হত্যা: গ্রেফতার কনস্টেবল হারুন আদালতে | ইসলাম ধর্ম নিয়ে কটুক্তি: জবি শিক্ষার্থীর বহিষ্কারের দাবিতে বিক্ষোভ | পুলিশ বাহিনীকে আধুনিকায়নের কাজ চলছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী | নোয়াখালীতে প্রতিবন্ধী শিশুকে ধর্ষণ, কিশোরের বিরুদ্ধে মামলা | আদ-দ্বীনে ব্যারিস্টার রফিক-উল হকের প্রথম জানাজা অনুষ্ঠিত | সিটি ব্যাংক ও ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ-এর মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষর | ব্যারিস্টার রফিক-উল হকের প্রতি বিএনপির শ্রদ্ধা | নামাজ আদায় করতে পারেন না বলে অভিনয় ছেড়ে দিলেন নায়িকা মুক্তি | নওগাঁয় করলা চাষে ভাগ্যের বদল হয়েছে কৃষক জলিলের |
  • আজ ৮ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে এনায়েতপুরে চলছে প্রিন্টিং ফ্যাক্টরীর কাজ

৫:০৩ অপরাহ্ন | বৃহস্পতিবার, মার্চ ২৬, ২০২০ দেশের খবর, রাজশাহী

উজ্জ্বল অধিকারী, বেলকুচি (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি- দেশজুড়ে যখন করোনা ভাইরাস সংক্রমণের আতঙ্ক বিরাজ করছে ঠিক তখনি সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুরে চৌধুরী প্রিন্টিং ফ্যাক্টরী কাজ চলছে নিজস্ব গতিতে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, চৌধুরী প্রিন্টিং এ ১২ জন কর্মচারী কাজ করছেন। তাদের নেই কোন স্বাস্থ্য সম্মত ব্যবস্থা। করোনা ভাইরাসের ঝুকি নিয়ে কাজ চালিয়ে যাচ্ছে এই ফ্যাক্টরীর শ্রমিকেরা।

ফ্যাক্টরিতে কর্মরত গ্রাফিক্স ডিজাইনার হাজী মিজান জানান, করোনা ভাইরাস সংক্রমন ঝুকি সম্পর্কে আমরা টিভি ও সংবাদপত্রের মাধ্যমে জানতে পেরেছি।

তবুও মালিক পক্ষ থেকে কাজ বন্ধ রাখার নির্দেশনা আসেনি। তাই আমরা এই কারখানাতে কাজ চালিয়ে যাচ্ছি। যদিও সরকারী নিষেধাজ্ঞা রয়েছে কাজ করার ব্যাপারে তবুও সামনে ঈদ থাকায় কাজের চাপ থাকার কারণে আমাদের কাজ চালিয়ে যেতে হচ্ছে।

এবিষয়ে ঐ ফ্যাক্টরীর মালিকের ছেলে তথ্য সংগ্রহ করতে গেলে উপস্থিত সাংবাদিকদের বাঁধা দেন। তবে চৌধুরী প্রিন্টিং ফ্যাক্টরীর স্বত্বাধিকারী সাথে একাধিক বার মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলেও যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

বিষয়টি সম্পর্কে চৌহালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা দেওয়ান মওদুদ আহমেদ জানান, আমরা ঐ ফ্যাক্টরীর কার্মকান্ড চলছে এটা আপনাদের মাধ্যমে জানতে পেরেছি। আমি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে মুঠো ফোনে বলে দিয়েছি। তিনি ঘটনাস্থলে গিয়ে বিষটি দেখছে। তবুও যদি ফ্যাক্টরী বন্ধ না হয় তবে ঐ প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আইনানুসারে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।