কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে চিকিৎসা দিচ্ছে মুসলিম ও ইহুদি ডাক্তাররা

৯:৩৪ অপরাহ্ন | সোমবার, মার্চ ৩০, ২০২০ আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস মোকাবেলায় কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে মুসলিম ও ইহুদি ডাক্তাররা চিকিৎসা দিচ্ছেন। স্বাস্থ্য সংকটের মুখে সাময়িকভাবে সব বিবেদ ভুলে গিয়েছেন তারা।

করোনার মহামারী ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়েছে পৃথিবীর একমাত্র ইহুদি রাষ্ট্র ইসরাইলেও। দ্রুত বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা।

সর্বশেষ পরিসংখ্যান মতে, আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় চার হাজারে। মৃত্যু হয়েছে ১৪ জনের। ইরানের মতোই উপচে পড়ছে দেশটির হাসপাতালগুলো। স্বাস্থ্য সংকটের মুখে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কোভিড-১৯ রোগীদের চিকিৎসা দিচ্ছেন আরব মুসলিম ও ইহুদি ডাক্তার ও চিকিৎসকরা।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া একটি ছবিতে দেখা যায়, হাসপাতাল থেকে ফেরার পথে রাস্তায় নামাজ পড়ছেন এক মুসলিম চিকিৎসক। তার পাশেই আরেক ইহুদি চিকিৎসক উল্টো দিকে প্রার্থনা করছেন।

ফেব্রুয়ারি মাসের ২১ তারিখ ইসরাইলে প্রথম করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি শনাক্ত হয়। ২১ মার্চ এক মাসের ব্যবধানে সেটা বেড়ে হয় ৮৪৬। ২১ মার্চ থেকে ২৮ মার্চের মধ্যে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৬১৯ এ।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ইতোমধ্যে ইসরাইল সব স্কুল, কলেজ বন্ধ ঘোষণা করেছে। নিষিদ্ধ করেছে সব ধরনের সভা (উন্মুক্ত কিংবা মিলনায়তনে)। নিয়ম না মানায় ইতিমধ্যে ১০ জনকে নিষিদ্ধও করা হয়েছে।

এদিকে করোনাভাইরাস আক্রান্তের আশঙ্কায় ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। নেতানিয়াহুর সংসদীয় উপদেষ্টা ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হওয়ায় এক সপ্তাহের জন্য তাকে আইসোলেশন করা হবে।

ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী অফিসের এক বিবৃতিতে সোমবার এ তথ্য জানানো হয়েছে।

আনাদলু এজেন্সির খবরে বলা হয়, নেতানিয়াহুর সংসদীয় উপদেষ্টা রিভকা পালুচ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তার আক্রান্ত হওয়ার পর ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী দ্বিতীয়বারের মতো করোনভাইরাস পরীক্ষা করবেন।