🕓 সংবাদ শিরোনাম
  • আজ রবিবার, ২ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ ৷ ১৬ মে, ২০২১ ৷

দিনাজপুরে আরও একজনের করোনা শনাক্ত, মোট আক্রান্ত ৮


❏ বুধবার, এপ্রিল ১৫, ২০২০ দেশের খবর, রংপুর

শাহ্ আলম শাহী, স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর থেকে- দিনাজপুরে নতুন করে আজ বুধবার আরো একজনের শরীরে করোনা ভাইরাসে শনাক্ত হয়েছে। তার বাড়ি পার্বতীপুর উপজেলায়। সে গার্মেন্টসকর্মী। মানিক শাহ নামের ওই যুবক তিনদিন আগে পার্বতীপুরে আসে।

এ নিয়ে দিনাজপুরে ৮ জন প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন বলে জানিয়েছেন দিনাজপুর জেলা সিভিল সার্জন ডাঃ আব্দুল কুদ্দুস।

দিনাজপুরে প্রথমবারের মতো করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ৭ জন রোগী মঙ্গলবার শনাক্ত হয়। আজ হলো আরো একজন। আক্রান্তরা হলেন, দিনাজপুর শহরে ৩ জন, নবাবগঞ্জ উপজেলায় ৩ জন এবং ফুলবাড়ী উপজেলায় একজন। এর মধ্যে এক দম্পত্তিও রয়েছেন।

দিনাজপুর জেলা সিভিল সার্জন ডা, আব্দুল কুদ্দুস জানিয়েছে, করোনাভাইরাস আছে কি না তা পরীক্ষার জন্য দিনাজপুরে এ পর্যন্ত ১৪৯ জনের নমুনা সংগ্রহ করে রংপুরে পাঠানো হয়। ইতোমধ্যে ৭২ জনের রিপোর্ট পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ৮টি পজেটিভ। বাকি ৭৭ জনের রিপোর্ট দু’এক দিনের মধ্যে পাওয়া যাবে তিনি জানিয়েছেন।

জানা গেছে, দিনাজপুরে যে ৮ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন, তারা ৭ জনেই কয়েকদিন আগে ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ ও গাজীপুর থেকে দিনাজপুরে এসে অবস্থান নিয়েছেন। বাকি একজন স্থানীয়।

করোনা ভাইরাসে শনাক্তদের এলাকাগুলো লকডাউন করা হয়েছে। এছাড়াও দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসলেসোন ইউনিট থেকে পালিয়ে যাওয়া ব্যক্তি আজিজার রহমান মঙ্গলবার করোনার উপসর্গ নিয়ে মৃত্যুবরণ করার পর তার বিরামপুর উপজেলার কাটলায় শৈলান গ্রামটির ২০ পরিবারকে লকডাউন করা হয়েছে।

এ বিষয়ে দিনাজপুর জেলা প্রশাসক মো. মাহমুদুল আলম যোগাযোগ করা হলে তিনি জানিয়েছেন, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত যারা শনাক্ত হয়েছেন, তাদের এলাকাগুলো লকডাউন করা হয়েছে। তবে, কৃষি নির্ভর জেলা হওয়ায় পুরো জেলায় লকডাউন দেয়া কিছুটা বিড়ম্বনা রয়েছে।

পরিস্থিতি বিবেচনায় করোনাভাইরাস প্রতিরোধ কমিটি’র মিটিং এ পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। তবে, করোনাভাইরাস সংক্রামন ঝুকি এড়াতে দিনাজপুরে জেলা প্রশাসন যে গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন, দিনাজপুরবাসী অনেকাংশে তা মেনে না চলায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন জেলা প্রশাসক মাহমুদুল আলম।

তিনি সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে যানবাহন চলাচলে নিয়ন্ত্রণ ও ঘরে থাকার জন্য জেলাবাসীর প্রতি আহবান জানিয়েছেন।