বগুড়ায় চিকিৎসকদের জন্য চারতলা বাড়ি দিতে চায় ভাষাসৈনিকের পরিবার

৫:৫৯ অপরাহ্ন | সোমবার, এপ্রিল ২৭, ২০২০ দেশের খবর, রাজশাহী

সাখাওয়াত হোসেন জুম্মা, বগুড়া প্রতিনিধি: করোনা চিকিৎসার সাথে জড়িত ডাক্তার, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের থাকার জন্য বগুড়ায় নিজেদের চারতলা ভবন ব্যবহারের প্রস্তাব দিয়েছে ভাষাসৈনিক গাজিউল হকের পরিবার। এছাড়াও বাড়ির সামনের খোলা মাঠটিকে করোনায় আক্রান্তদের জন্য কোয়ারেন্টাইন সেন্টার বানানোর প্রস্তাব দিয়েছে পরিবারটি।

ভাষা আন্দোলন ও মহান মুক্তিযুদ্ধে বিশেষ অবদান রাখা প্রয়াত গাজিউল হকের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতেই এমন উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন তার ছেলে রাহুল গাজী।

বগুড়ার সুলতানগঞ্জ এলাকায় অবস্থিত চারতলা ভবনের নিচের দুই তলায় রয়েছে একটি স্কুল। কিন্তু করোনা সংক্রমণের কারণে বর্তমানে সেটি বন্ধ রয়েছে। তৃতীয় ও চতুর্থ তলায় থাকার উপযোগী অনেকগুলো ঘর থাকলেও তা ফাঁকাই পড়ে আছে। ভাষা সৈনিক গাজিউল হকের পরিবারের ইচ্ছা করোনা চিকিৎসায় নিয়োজিতদের থাকার জন্য এই বাড়িটি ব্যবহৃত হোক।

ভাষা সৈনিক গাজিউল হকের ছেলে রাহুল গাজী বলেন, আমরা পারিবারের সকলের সঙ্গে আলোচনা করেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। যে কদিন করোনা ভাইরাসের এই প্রাদুর্ভাব থাকবে, ততদিন সরকার যেন আমাদের এই বাড়িটি ব্যবহার করে।

এ বিষয়ে বগুড়ার জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহম্মেদ জানিয়েছেন, গাজিউল হকের পরিবারের এই প্রস্তাব তিনি পেয়েছেন। বর্তমানে সেটি বিবেচনাধীন আছে।

বগুড়ার সিভিল সার্জন গউসুল আজিম চৌধুরী জানান, এ সময় ভাষা সৈনিক গাজিউল হকের পরিবার এমন সিদ্ধান্ত নিয়ে যে মহানুভবতা দেখিয়েছেন তা দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। বাড়িটি পাওয়া গেলে চিকিৎসায় নিয়োজিতদের বিশেষ উপকার হবে বলেও তিনি জানান।