সংবাদ শিরোনাম

কক্সবাজারে ইয়াবা সম্রাটের সহযোগীর বাড়ি থেকে ১ লাখ ২০ হাজার ইয়াবা উদ্ধারসিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ সস্ত্রীক করোনায় আক্রান্তরোহিঙ্গা শিশু অপহরণের পর হত্যার ঘটনায় নারীসহ দু’জন গ্রেপ্তারবেলকুচিতে দূর্বৃত্তদের আগুনে পুড়ে গেল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান !জামালপুরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে রাতভর ধর্ষণ, গ্রেফতার মাদ্রাসার শিক্ষক‘করোনাকালের নারী নেতৃত্ব: গড়বে নতুন সমতার বিশ্ব’বগুড়ায় শিক্ষা প্রনোদনা পেতে প্রত্যয়নের নামে টাকা নেয়ার অভিযোগজামালপুরে ধর্ষণ মামলায় ধর্ষকের যাবজ্জীবনপাবনায় অবৈধ অস্ত্র তৈরির কারখানায় অভিযান, চারটি আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেফতার-২উপজেলা আ.লীগের সভাপতিকে ‘পেটালেন’ কাদের মির্জা!

  • আজ ২৪শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

করোনা থেকে বাঁচতে এলকোহল পান, ইরানে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭২৮

৮:৩০ অপরাহ্ন | মঙ্গলবার, এপ্রিল ২৮, ২০২০ আন্তর্জাতিক
mithanol

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ করোনাভাইরাস মহামারি ঠেকাতে সারাবিশ্ব তৎপর। বিশেষজ্ঞরা প্রতিষেধক বা ভ্যাকসিন তৈরির প্রাণপণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। এরই মাঝে বিশ্ব জুড়ে ছড়িয়ে পড়েছে নানা গুজব। মধ্যপ্রাচ্যের দেশ ইরানেও ঘটেছে এমনি এক ঘটনা। করোনাভাইরাস নিরাময়ের উদ্দেশে বিষাক্ত মিথানল খেয়ে দেশটিতে প্রায় ৭২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে।

ইরানের অ্যালকোহল পরিসংখ্যানের অফিস সোমবার জানিয়েছে, হাজার হাজার মানুষ অসুস্থ হয়েছে এবং ৭২৮ জন মারা গেছে৷ গুজবটা আসলে ছড়িয়েছিল করোনারি হার্ট ডিজিজের বিরুদ্ধে মদ্যপান থেকে৷

ইরানের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বলেছেন, পাঁচ হাজার ১১ জন ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যালকোহল পান করেছে৷ নিজেদের সন্তানদেরও সেই বিষাক্ত জিনিস পান করিয়েছে তা্রা৷ অন্তত ৯০ জন এটা সেবনের পর দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছেন৷ তবে আরও বেশি মানুষ দৃষ্টিশক্তি হারাতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

যেহেতু ইরানে মদ্যপান নিষিদ্ধ তাই কেউ অ্যালকোহল পাননি৷ তাদের দেশে অ্যালকোহলের যে ফর্ম পাওয়া যায় তা হলো মিথানল বা ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যালকোহল৷ আর সেটাই পান করে নেন তারা৷ করোনাভাইরাস থেকে বাঁচতেই তারা এই ভয়ানক কাজ করেন।

পান করার জন্য সুপেয় নয় মিথানল। এর সুগন্ধ নেই। পান করার মতো তেমন কোনো স্বাদও নেই। এটা পান করলে বিভিন্ন অঙ্গ ও ব্রেনের মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। এর কিছু লক্ষণ হলো বুকে ব্যথা, নাকে সর্দি ঝরা, হাইপারভেন্টিলেশন, অন্ধত্ব ও কোমায় চলে যাওয়া।

উল্লেখ্য, মধ্যপ্রাচ্যে সবচেয়ে মারাত্মক আকারে ইরানে দেখা দিয়েছে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ। এ পর্যন্ত সেখানে মারা গেছেন ৫৮০৬ জন। আক্রান্ত হয়েছেন কমপক্ষে ৯১ হাজার।