মাদারীপুরে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ ৫ জনসহ আহত ১০

৫:৪৭ অপরাহ্ন | রবিবার, মে ৩, ২০২০ ঢাকা, দেশের খবর

মেহেদী হাসান সোহাগ, স্টাফ রিপোর্টার, মাদারীপুর- মাদারীপুর সদর উপজেলার পূর্ব রাস্তি এলাকায় রোববার দুপুরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় ৫ জন গুলিবিদ্ধসহ ১০ জন আহত হয়। গুলিবিদ্ধ আহতদের সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বিগত রাস্তি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে রাজু হাওলাদার ও বেল্লাল মোল্লা চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে। নির্বাচনে অবশ্য দুজনের কেউ বিজয়ী হতে পারেননি। এরপর থেকেই দুজনের মধ্যে এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মাঝে মধ্যে চরম উত্তেজনা দেখা দিত। এ আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করেই দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় ৫ জন গুলিবিদ্ধসহ ১০ জন আহত হয়।

গুলিবিদ্ধরা হলেন পূর্বরাস্তি এলাকার সালাম সরদারের ছেলে রাজ্জাক সরদার (৩২), মজিবর সরদারের ছেলে মামুন সরদার (৩৫), ঘেসু বেপারীর ছেলে পলাশ বেপারী (৩৫), মজিবর সরদারের ছেলে সাদ্দাম সরদার (৩২), ফিরোজ সাহী (৪২)।

এছাড়াও আরো ৫ জন আহত হয়েছে। গুলিবিদ্ধ ৫ জন সদর হাসপাতালে ভর্তি আছে। এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এখন পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

এ ব্যাপারে বেল্লাল মোল্লা ও রাজু হাওলাদারের কাউকেই যোগাযোগ করে পাওয়া যায়নি।

মাদারীপুর সদর হাসপাতালের জরুরী বিভাগে কর্তব্যরত ডাক্তার মফিজুল ইসলাম লেলিন বলেন, সংঘর্ষের ঘটনায় গুলিবিদ্ধ ৫ জন সদর হাসপাতালে ভর্তি আছে।

মাদারীপুর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ( সদর সার্কেল ) মোহাম্মদ বদরুল আলম মোল্লা বলেন, এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে রাজু হাওলাদার ও বেল্লাল মোল্লা দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় ৫ জন গুলিবিদ্ধসহ আরো বেশ কয়েকজন আহত হয়।

ধারণা করা হচ্ছে বেল্লাল মোল্লা তার লাইসেন্স করা বন্ধুক বা শর্টগান দিয়ে গুলি করে। আমরা বেল্লাল মোল্লাকে ধরার জন্য অভিযান চালিয়েছি। এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এখন পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। থানায় এখন পর্যন্ত কেউ অভিযোগ দায়ের করেনি।