সংবাদ শিরোনাম
অবশেষে ব্রাজিলে ফিরতে পারছেন রোনালদিনহো | কারাগার থেকে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত কয়েদি নিখোঁজ: আরও দুজন সাময়িক বরখাস্ত | প্রথমবারের দেশের বাজারে এলো ‘টু সিরিজ গ্র্যান কুপ’ বিএমডব্লিউ | শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ, শ্রীমঙ্গলে মা-বাবার পাহারায় ঘরে বসে ‘সততা’ পরীক্ষা | গোপালগঞ্জ জেলা পরিষদ সদস্য মন্নু করোনায় আক্রান্ত | থানায় বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় মিরপুরের ৬ পুলিশ কর্মকর্তা বদলি | জীবনসঙ্গিনী খুঁজে নিলেন চাহাল | এবার ১২০০ কোটি রুপি ব্যয়ে আকাশছোঁয়া ‘হনুমানের মূর্তি’ তৈরি হচ্ছে ভারতে | লাদাখ সীমান্তে উত্তেজনা বৃদ্ধি, আবারো চীনা সেনা মোতায়েনের দাবি ভারতের | হাজিদের পাথর নিক্ষেপে পদদলিত হয়ে মৃত্যু থামিয়ে ছিলেন এই বাংলাদেশি ইঞ্জিনিয়ার |
  • আজ ২৫শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ফেসবুকের কাছে ২৯৮ আইডির তথ্য চেয়েছে সরকার

১১:৩৩ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, মে ১৪, ২০২০ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ডেস্ক- ২০১৯ সালের শেষ ছয় মাসে ফেসবুক কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে মোট ২৯৮টি আইডি সম্পর্কে তথ্য চেয়েছে বাংলাদেশ সরকার। এগুলোর মধ্যে ফেসবুকের প্রাইভেসি পলিসি রক্ষা করে প্রায় ৪৫ শতাংশ বা ১৩৪ টি আইডির তথ্য দিয়েছে তারা।

সম্প্রতি ২০১৯ সালের শেষ ছয় মাস বিভিন্ন দেশকে সহযোগিতার বিষয়ে তুলে ধরে কমিউনিটি স্ট্যান্ডার্ড এনফর্সমেন্ট প্রতিবেদন প্রকাশ করে ফেসবুক।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৯ এর শেষ ছয় মাসে ফেসবুকের কাছে তথ্য চেয়ে মোট ১৭৯টি আবেদন করে বাংলাদেশ সরকার। এরমধ্যে ৮৪টি আবেদন করা হয় আইনি প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে। আর ৯৫টি আবেদন করা হয় জরুরি প্রয়োজনে। আর এসব আবেদনের মাধ্যমে মোট ২৯৮টি আইডির তথ্য চাওয়া হয় সরকারের পক্ষ থেকে।

এসব আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ৪১ শতাংশ আইনি প্রক্রিয়ার আবেদনে সরকারকে তথ্য দেয় ফেসবুক। একইসঙ্গে ৫০ শতাংশ জরুরি আবেদনেরও তথ্য দেওয়া হয়। সবমিলে গড়ে আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে প্রায় ৪৫ শতাংশ ক্ষেত্রে সরকারকে তথ্য দেয় ফেসবুক।

প্রতিবেদনে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে ফেসবুকের কাছে যাওয়া আবেদনের সামগ্রিক চিত্রও তুলে ধরা হয়। এতে দেখা যায়, ২০১৩ সালের প্রথম অর্ধভাগে ফেসবুকের কাছে প্রথম তথ্য চেয়ে একটি আবেদন করে বাংলাদেশ সরকার। একই বছরের পরের অর্ধভাগে আর কোনো আবেদন করা না হলেও ২০১৪ সাল থেকে ২০১৯ পর্যন্ত প্রতি অর্ধভাগেই ফেসবুকের কাছে তথ্য চেয়েছে বাংলাদেশ।

তবে ২০১৫ সালের প্রথম অর্ধভাগ পর্যন্ত বাংলাদেশকে কোনো রকম তথ্য দেয়নি ফেসবুক। সে বছরের দ্বিতীয় ভাগে প্রথম বাংলাদেশকে তথ্য দেওয়া শুরু করে সামাজিক মাধ্যমটি। সেবার মোট আবেদনের প্রায় ১৬ শতাংশ তথ্য বাংলাদেশকে দেয় ফেসবুক।

একইসঙ্গে ২০১৯ সালের শেষ ভাগে ১৬টি আবেদনের মাধ্যমে ১৬টি আইডি সম্পর্কিত তথ্যাদি ‘সংরক্ষণ’ করে রাখার জন্য ফেসবুকের কাছে আবেদন করে বাংলাদেশ।

Skip to toolbar