• আজ ১০ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

করোনায় উদ্ভূত পরিস্থিতির দায় সরকারকেই বহন করতে হবে: ফখরুল

১০:৪৩ অপরাহ্ন | বুধবার, জুন ৩, ২০২০ জাতীয়
fakhrul

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্কঃ করোনা মহামারির ভয়াবহ পরিস্থিতির দায়-দায়িত্ব সরকারকেই বহন করতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বুধবার (০৩ জুন) বিকেলে নাগরিক ঐক্যের ৮ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি কার্যালয়ের মিলনায়তনে আলোচনায় ইন্টারনেটের মাধ্যমে যুক্ত হয়ে তিনি এ মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, আজকে যারা রাষ্ট্র পরিচালনার দায়িত্ব জোর করে নিয়েছেন তারা জনগণকে কোনো মূল্য দেন না, তাদের কাছে অনেক বেশি মূল্য হচ্ছে ব্যবসার, তাদের কাছে অনেক বেশি মূল্য হচ্ছে তাদের সো-কলড প্রবৃদ্ধি বাড়ানোর। কোনোটাই বাড়বে না, সবকিছু নিচে নেমে যাচ্ছে এবং ভয়াবহ পরিণতির দিকে যাচ্ছে। এই অবস্থায় তারা তৈরি করেছে, এই দায়-দায়িত্ব সরকারকেই নিতে হবে।

সাধারণ ছুটি তুলে নেয়ার সমালোচনা করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, সরকারের টেকনিক্যাল কমিটি বলছে যে, এই মুহুর্তে সরকারি ছুটি তুলে নেয়াটা একটা বিপদজনক অবস্থা হবে। এমনকি প্রধানমন্ত্রীর যিনি ব্যক্তিগত চিকিতসক ডা. আবদুল্লাহ তিনিও বলেছেন যে, এটা খুব ভাল সিদ্ধান্ত হচ্ছে না, এটা একটা সুইসাইডাল সিদ্ধান্ত। আমরা কার কাছে কী বলব? কোথায় যাবেন আপনারা? এদেশের মানুষ কার কাছে যাবে? এদেশের প্রতিটি মানুষ আজকে আতঙ্কে আছে।

তিনি বলেন, আমি জানি না যে, এখান থেকে কীভাবে সরকার বা এদেশের মানুষ বেরিয়ে আসবে। সমগ্র বিশ্ব যখন এই সমস্যার সমাধান করতে গিয়ে হিমশিম খাচ্ছে। এখন পর্যন্ত কোনো ওষুধ ও ভ্যাকসিন আবিস্কার হয়নি এবং হওয়াও ডিফিকাল্ট।

এর মধ্যে আন্তরিকতার মধ্য দিয়ে সকলের সাথে আলোচনা করে, যদি পরামর্শ করে পদক্ষেপ নেওয়া হতো তাহলে হয়তো এই অবস্থা নাও হতে পারতো। দুর্ভাগ্য আমাদের যারা রাষ্ট্র পরিচালনার দায়িত্ব জোর করে নিয়েছেন তারা জনগণকে মূল্য দেন না। তাদের কাছে অনেক বেশি মূল্য হচ্ছে ব্যবসা।

আলোচনা সভায় সংগঠনের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্নার সভাপতিত্বে ও সমন্বয়কারী শহীদুল্লাহ কায়সারের পরিচালনায় ইন্টারেনেটের মাধ্যমে জেএসডির সভাপতি আসম আবদুর রব, গণফোরামের সাবেক নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী ও গণসংহতির প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকীও বক্তব্য রাখেন।

এছাড়া প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী আলোচনা সভায় উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন গণফোরামের প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট জগলুল হায়দার আফ্রিক, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আকবর খান ও মুক্তিযোদ্ধা দলের সাধারণ সম্পাদক সাদেক আহমেদ খান। ২০১২ সালে মাহমুদুর রহমান মান্নার নেতৃত্বে এই রাজনৈতিক দলের আত্মপ্রকাশ হয়।

হাসান মাহমুদ করোনা মুক্ত হলেন তথ্যমন্ত্রী

রবিবার, অক্টোবর ২৫, ২০২০