ব্রাজিলে বেড়েই চলেছে করোনার তাণ্ডব, একদিনে ১৩৪৯ জনের মৃত্যু

৯:১৯ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, জুন ৪, ২০২০ আন্তর্জাতিক
brazil

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে ল্যাটিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে। দেশটিতে বুধবার (৩ জুন) একদিনে রেকর্ড ১ হাজার ৩৪৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। যা ছিল এদিন বিশ্বে সর্বোচ্চ। এ নিয়ে দেশটিতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩২ হাজার ৫৪৮।

এদিকে কোভিড-১৯ ভাইরাসে ল্যাটিন আমেরিকার সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এ দেশে ভাইরাসটি দ্রুত ছড়িয়ে পড়া অব্যাহত রয়েছে। দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে মোট ৫ লাখ ৮৪ হাজার ১৬ জনে দাঁড়িয়েছে। ফলে কোভিড-১৯ ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যার দিক থেকে ব্রাজিল বিশ্বে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। এদিক থেকে যুক্তরাষ্ট্র রয়েছে সর্বোচ্চ অবস্থানে।

এ অবস্থায় অর্থনীতির স্বার্থে দেশটির ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ব্রাজিল সরকার। একইসঙ্গে, লকডাউনের সমালোচনা করে করোনায় মৃত্যুকে নিয়তি বলে অভিহিত করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট জেইর বোলসানারো।

জেইর বোলসানারো বলেন, এতসব পদক্ষেপ নেয়ার পর ব্রাজিলের এখন যে পরিস্থিতি তা হলো, দরিদ্র জনগোষ্ঠী আরও দরিদ্র হচ্ছে, মধ্যবিত্তরাও দরিদ্রতার পথে হাঁটছেন। দেশের সব জনগোষ্ঠীর অবস্থায় বলতে গেলে এক। এ অবস্থায় লকডাউন তুলে নেয়ার বিষয়টি সুপ্রিম কোর্ট মেয়র এবং গভর্নরদের ওপর ছেড়ে দিয়েছেন।

করোনা পরিস্থিতি সবচেয়ে খারাপ রিও ডি জেনিরোতে। এরপরও, সেখানে শিথিল করা হয়েছে লকডাউন। খুলে দেয়া হয়েছে সমুদ্র সৈকত। চালু হয়েছে গণপরিবহন। তবে, কোভিড পরীক্ষায় শহরের বিভিন্ন রাস্তায় চালু করা হয়েছে বুথ। গাড়িতে করে এসে ভিতরে থাকা অবস্থায়ই কোভিড পরীক্ষা করাচ্ছেন সাধারণ মানুষ।

অন্যদিকে, একই পরিস্থিতি আরেক শহর সাও পাওলোতেও। সেখানকার বস্তিগুলোয় কোভিড পরীক্ষার উদ্যোগ নিয়েছে আন্তর্জাতিক সংগঠনগুলো। দেয়া হচ্ছে নানা ধরনের ত্রাণ সহায়তাও।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ২১ কোটি জনসংখ্যার দেশ ব্রাজিলে সরকারিভাবে ঘোষিত সংখ্যার চেয়ে দেশটিতে করোনাভাইরাসে প্রকৃত আক্রান্তের সংখ্যা অনেক বেশি হতে পারে। কেননা, দেশটিতে প্রয়োজনের তুলনায় অনেক কম পরীক্ষা করা হচ্ছে।