• আজ ১২ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

গোপনে বাসায় কোচিং, প্রধান শিক্ষকের জরিমানা

৬:৩৬ অপরাহ্ণ | বুধবার, জুন ১০, ২০২০ ঢাকা

মির্জাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি- টাঙ্গাইলের মির্জাপুর পৌর সদরের বাইমহাটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হোসনে আরা কে নিজ বাসায় কোচিং করানোর অপরাধে জরিমানা করা হয়েছে।

বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে অভিযান চালিয়ে এই প্রধান শিক্ষককে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন, সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. জোবায়ের হোসেন।

অভিযোগ রয়েছে, দীর্ঘদিন যাবৎ তিনি তার বাসায় কোচিং বাণিজ্য করে আসছিলেন। করোনাকালেও তার বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের কোচিং করাচ্ছিলেন ঠিক মতোই। গোপন তথ্যে ঐ প্রধান শিক্ষক হোসনে আরার বাসার একটি কক্ষে গিয়ে কোচিং করানোবস্থায় ২০-২৫ জন শিক্ষার্থীকে দেখা যায়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে তাকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

“২০১২ সালে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জারি করা নীতিমালায় বলা হয় কোনো শিক্ষক নিজ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীকে কোচিং করাতে পারবেন না। কিন্তু শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নীতিমালা ও করোনাকালে সরকারি নির্দেশনা অমান্য করেই কোচিং বাণিজ্য করে আসছিলেন এই প্রধান শিক্ষক। যেখানে করোনা মোকাবেলায় তার নিজের এবং শিক্ষার্থীদের মাঝে কোনো সুরক্ষা সামগ্রী বা সচেতনতা লক্ষ করা যায়নি”!

অভিযোগ উঠেছে তার বিদ্যালয়ের ১ম থেকে ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের নিয়ে তিনি কোচিং করান। তবে এদের মধ্যে ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের কোচিং বাধ্যতামূলক। যেখানে একেকজন শিক্ষার্থীর কাছ থেকে প্রতি মাসে কোচিং বাবদ ২ হাজার করে টাকা আদায় করেন তিনি।

এ বিষয়ে সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. জোবায়ের হোসেন বলেন, সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে এবং করোনা মোকাবেলায় স্বাস্থ্যবিধি না মেনে তিনি কোচিং করাচ্ছিলেন। গোপন সংবাদ পেয়ে আমরা তার বাসায় গিয়ে হাতেনাতে প্রমাণ পাই এবং তাকে জরিমানা করি। এর আগেও একটি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করা হয়েছে। ভবিষ্যতে এ ধরণের কার্যকলাপ কেউ করলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোরভাবে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।