১১ দফা শর্তে চালু হলো বাংলাবান্ধা স্থলবন্দর

৫:০২ অপরাহ্ণ | শনিবার, জুন ১৩, ২০২০ দেশের খবর, রংপুর

নাজমুস সাকিব মুন, পঞ্চগড় প্রতিনিধি- দীর্ঘ আড়াই মাস পর চালু হতে যাচ্ছে দেশের সর্ব উত্তরের চতুর্দেশীয় বাংলাবান্ধা স্থলবন্দর। তবে করোনার বিস্তার ঠেকাতে ১১ দফা শর্ত জুড়ে দেয়া হয়েছে। এর আগে ২৫ মার্চ বন্দরের আমদানি-রফতানি কার্যক্রম বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

বাংলাদেশ, ভারত, নেপাল ও ভুটানের আমদানি-রপ্তানিকারকদের মধ্যে কয়েক দফা বৈঠক ও চিঠি আদান-প্রদানের পর সকল প্রকার স্বাস্থ্যবিধি মেনে চার দেশের মাঝে এই বন্দর দিয়ে বাণিজ্য কার্যক্রম শুরুর সিদ্ধান্ত হয়েছে।

শনিবার (১৩ জুন) সকাল সাড়ে ৮টায় আমদানি-রফতানি চালু হওয়ার কথা থাকলেও বৃষ্টির কারণে বিলম্বিত হয়ে বেলা সাড়ে ১১টায় ভারত থেকে পাথর বোঝাই ট্রাক বন্দরে প্রবেশের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিক ভাবে স্থলবন্দরের কার্যক্রম শুরু হয়। এদিকে জিরো পয়েন্টে হ্যান্ড থার্মাল স্ক্যানার দিয়ে মাপা হচ্ছে ভারতীয় ট্রাক চালকদের শরীরের তাপমাত্রা। প্রতিটি ট্রাককে জীবানুনাশক স্প্রে করে বন্দরে প্রবেশ করতে দেয়া হচ্ছে।

প্রতিদিন এই বন্দরে ভারত-নেপাল ও ভুটানের একশত ট্রাক প্রবেশ করবে। বাংলাবান্ধা স্থলবন্দর কর্তৃপক্ষ জানায়, জেলা প্রশাসনের ১২টি শর্ত সাপেক্ষে বন্দরে আমদানী-রপ্তানী কার্যক্রম শুরু হয়েছে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে আমদানি-রফতানি কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে।

নির্দেশনার মধ্যে রয়েছে- বিদেশি চালকরা বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া কোনো অবস্থাতেই গাড়ি থেকে নামতে পারবেন না; প্রয়োজনে পানিসহ শুকনো খাবার ও কাগজ কলম সাথে বহন করবেন; বন্দর কর্তৃপক্ষ পৃথক শৌচাগারের ব্যবস্থা করবেন; কোনো অবস্থাতেই বাংলাদেশে অবস্থান করতে পারবেন না; চালকদের জন্য পৃথক প্রবেশ ও বর্হিগমণের ব্যবস্থা করতে হবে; একটি মনিটরিং কমিটি থাকবে এবং বন্দরের কার্যক্রম সিসি ক্যামেরা দ্বারা নিয়ন্ত্রণ করতে হবে।

স্থলবন্দরের আমদানি রফতানি কার্যক্রম চালু হওয়ায় স্বস্তি ফিরেছে ব্যবসায়ী ও শ্রমিকদের মধ্যে। টানা আড়াই মাস পর বন্দর চালু হওয়ায় অর্থনীতির চাকা ঘুরতে শুরু করেছে।

এর আগে বৃহস্পতিবার (১১ জুন) দুপুরে জেলা প্রশাসক সাবিনা ইয়াসমিনের সভাপতিত্বে বন্দর কর্তৃপক্ষের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।