মেক্সিকোতে ৭.৪ মাত্রার ভূমিকম্প, নিহত ৬

২:৩৪ অপরাহ্ণ | বুধবার, জুন ২৪, ২০২০ আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- শক্তিশালী এক ভূমিকম্পের ঘটনা ঘটেছে মেক্সিকোর দক্ষিণাঞ্চলে। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকালে ৭.৪ মাত্রার ওই ভূমিকম্পে অন্তত ৬ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি।

মূল ভূমিকম্পের পর অসংখ্যবার মৃদু কম্পনও অনুভূত হয়েছে। এর উৎপত্তিস্থল ছিল দক্ষিণ-পশ্চিম মেক্সিকোর ওয়াক্সাকা রাজ্যে। সাতশো কিলোমিটার দূরের মেক্সিকো সিটি থেকেও কম্পন টের পাওয়া গেছে। ভূমিকম্পের সময় শত শত মানুষ আতঙ্কিত হয়ে ঘর ছেড়ে রাস্তায় নেমে আসে।

মৃতদের সবাই ওয়াক্সাকা রাজ্যের। ভবন ধসে অধিকাংশের মৃত্যু হয়েছে। তাদের বেশির ভাগেরই বাস ভূমিকম্পের এপিসেন্টারের ১৫০ কিলোমিটারের মধ্যে অবস্থিত শহরগুলোর মধ্যে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের একজন প্রত্যক্ষদর্শী সাংবাদিক ভূমিকম্পের কয়েক ঘণ্টা পরও প্রাণঘাতী পরাঘাতের আশঙ্কায় উদ্বিগ্ন লা ক্রুসেসিতার বাসিন্দাদের বাড়ির বাইরে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখেছেন।

স্থানীয় একজন কর্মকর্তা জানান, শহরের প্রায় ২০০ বাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে যার মধ্যে ৩০টি বাড়ি প্রায় ধ্বংস হয়ে গেছে। বাড়িগুলোর দেয়ালে বড় বড় ফাটল তৈরি হয়েছে।

স্থানীয় বাসিন্দারা নিজেরাই উদ্যোগী হয়ে রাস্তায় পড়ে থাকা আবর্জনা সরাতে শুরু করেছে।

“প্রকৃতির মূহুর্তের তাণ্ডবে আমরা সবকিছু হারালাম,” বলেন লা ক্রুসেসিতার এক স্টেশনারি দোকানের মালিক ভিসেন্তে রোমেরো; ভূমিকম্পে তার বাড়িও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

রাজ্যের রাজধানী ওহাকা সিটি থেকে পর্বত ঘুরে উপকূলের দিকে চলে যাওয়া সড়কগুলো ধসে পড়া পাথরে বন্ধ হয়ে রয়েছে। পার্বত্য অঞ্চলের প্রত্যন্ত একটি গ্রামে তিন জন গুরুতর আহত হয়েছেন বলে উদ্ধারকর্মীদের বরাত দিয়ে জানিয়েছেন রাজ্যটির এক কর্মকর্তা।

কয়েক ঘণ্টার চেষ্টার পর উদ্ধারকারীরা ভূমিকম্পের উপকেন্দ্রের কাছের বসতিগুলোতে পৌঁছতে পেরেছেন বলে জানিয়েছেন তিনি। ভূমিকম্পে এখানে বহু বাড়ি ধ্বংস হয়েছে এবং বেশ কয়েকটি পর্বতের একপাশ ধসে পড়েছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আসা ছবিতে দেখা গেছে, উপকেন্দ্রের কাছে একটি ক্লিনিক ও একটি গির্জা ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।