সংবাদ শিরোনাম

গাজীপুর ডিবি পুলিশের অভিযানে ১৫০১ পিস ফেনসিডিল উদ্ধার, গ্রেফতার-২কক্সবাজার দুই উপজেলায় পানি সংকটে কৃষকদের হাহাকার, বাঁধ নির্মাণে নানা অনিয়মবেলকুচিতে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমি ও গৃহ প্রদান সম্পর্কে প্রেস ব্রিফিংদম্পত্তির অন্তরঙ্গ ভিডিও ধারণ করতে গিয়ে জেলহাজতে ছাত্রলীগ সম্পাদকপদ্মা নদীতে ভ্রমণতরীর উদ্বোধন করলেন প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলীসবকিছু ছবি তুলে ফেসবুকে দিতে হয় না : আজহারীজামালপুরে ট্রেনের ধাক্কায় হাসপাতাল ওয়ার্ড বয়ের মৃত্যুবাগেরহাটে হস্তান্তরের শেখ হাসিনার উপহার ৪৩৩টি ঘর পাবনায় মায়ের পান আনতে গিয়ে শ্লীলতাহানির শিকার কলেজ ছাত্রী !শেরপুরে ফাঁসিতে ঝুলে যুবকের আত্মহত্যা

  • আজ ৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বগুড়ায় ক্লিনিকে ভুল অপারেশনের অভিযোগ, মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে গৃহবধূ

◷ ৮:১৭ অপরাহ্ন ৷ বুধবার, জুলাই ৮, ২০২০ দেশের খবর, রাজশাহী
I5888

সাখাওয়াত হোসেন জুম্মা, বগুড়া প্রতিনিধি: বগুড়ার শেরপুরে মেডিল্যাব ক্লিনিক ডায়াগনস্টিকে জরায়ুর সমস্যার ভুল অপারেশনে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে সাহেরা খাতুন (৪০)।

গত মঙ্গলবার বিকেলে তার অপারেশন হওয়ার পর থেকে তার অবস্থার অবনতি হয়। ঘটনা জানাজানি হলে তড়িঘড়ি করে তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

জানা যায়, উপজেলার খানপুর ইউনিয়নের চৌবাড়িয়া মধ্যপাড়া গ্রামের শফিকুল ইসলামের স্ত্রী সাহেরা খাতুন জরায়ুর সমস্যা নিয়ে মেডিল্যাব ক্লিনিক ডায়াগনস্টিকে গত সোমবার বেলা ২ টার দিকে আসে। তার পরীক্ষা নিরীক্ষায় ডায়াবেটিস ধরা পরে ১১ পয়েন্ট। তারপরেও টাকার লোভে পড়ে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে না এনে গত মঙ্গলবার বিকেলে রোগীর স্বামীকে না জানিয়েই অপারেশন করে অপরিচ্ছন্ন একটি ওয়ার্ডে (কক্ষে) রাখা হয়।

রোগীর অপারেশন করেন ডা. শহিদুর রহমান, এনাস্থেশিয়ায় ছিলেন ডা. মনিরুজ্জামান স্বপন। অপারেশনের পর থেকেই রোগীর অবস্থা আশংকাজনক হয়ে পড়লে শফিকুল ইসলাম স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম রাঞ্জুর কাছে গিয়ে জানালে চেয়ারম্যান ওই ক্লিনিকে উপস্থিত হন এবং ক্লিনিক কর্তৃপক্ষকে রোগীকে সুস্থ করার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলেন।

বিয়ষটি জানাজানি হলে মেডিল্যাব ক্লিনিক ডায়াগনস্টিকের পরিচালক মাসুদুর রহমান তড়িঘড়ি করে এ্যাম্বুলেন্স ডেকে এনে রোগীকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেয়।

মেডিল্যাব ক্লিনিক ডায়াগনস্টিকের পরিচালক মাসুদুর রহমান জানান, রোগীর ফাস্টিং টেস্ট করে ডায়াবেটিস পাওয়া গিয়েছিল। পরে ইনসুলিন দিয়ে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করে অপারেশন করা হয়েছে। পরে তার রক্তে জন্ডিস দেখা দিলে তার অবস্থার অবনতি হলে বগুড়া মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

এ ব্যাপারে খানপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম রাঞ্জু বলেন, শেরপুরে ব্যাঙের ছাতার মত ক্লিনিক গজিয়ে উঠেছে। এসব ক্লিনিকে নিয়মিত কোন ডাক্তার আছে বলে জানা নেই। চৌবাড়িয়া গ্রামের শফিকুল ইসলাম আমার কাছে কান্নাকাটি করে বিষয়টি অবগত করলে ক্লিনিকে গিয়ে দেখি রোগীর অবস্থা ভালনা। শুনলাম তার নাকি ডায়াবেটিসও রয়েছে। পরে তিনি ক্লিনিক কর্তৃপক্ষকে রোগীকে সুস্থ্য করার যাবতীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে বলেছি।