সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ৩রা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

মালয়েশিয়া সরকারের কাছে ক্ষমা চাইলেন রায়হান কবির

◷ ৭:৪৪ অপরাহ্ন ৷ বুধবার, জুলাই ২৯, ২০২০ আন্তর্জাতিক
aall

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম আল জাজিরার করা একটি প্রতিবেদনে বক্তব্যের জন্য মালয়েশিয়ার সরকারের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন সেখানে গ্রেফতার হওয়া বাংলাদেশি কর্মী মো. রায়হান কবির।

স্থানীয় সময় বুধবার (২৯ জুলাই) রায়হান কবিরের সঙ্গে দেখা করর পর এ তথ্য জানিয়েছেন রায়হানের আইনজীবী সিআর সেলভা।

তিনি জানান, মালয়েশিয়ার অভিবাসন বিভাগের সদর দফতরে তার সঙ্গে এক ঘণ্টার বৈঠকের সময় তিনি ক্ষমা চান।

এসময় রায়হান বলেন, করোনাকালীন সময়ে প্রবাসীদের প্রতি যে আচরণ করেছে অভিবাসন বিভাগ সেটিই তিনি প্রতিবেদনে বলেছেন। তবে তিনি মালয়েশিয়ানদের সম্মান ক্ষুণ্ণ করতে চাননি।

আইনজীবী আরও বলেন, তারা তাদের পরবর্তী পদক্ষেপের বিষয়ে অফিসিয়ালি ইমিগ্রেশন বিভাগকে লিখিতভাবে চিঠি পাঠাবেন এবং রায়হান কবিরকে কখন নির্বাসন দেওয়া হবে তা জানতে চাইবেন।

এর আগে ২০২০ সালের ৩ জুলাই আল জাজিরা টেলিভিশনের অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলে ‘লকডআপ ইন মালয়েশিয়ান লকডাউন-১০১ ইস্ট’ শীর্ষক একটি অনুসন্ধানী প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। ২৫ মিনিট ৫০ সেকেন্ডের ওই প্রতিবেদনে করোনাভাইরাস মহামারিতে মালয়েশিয়ায় অবৈধ অভিবাসীদের সঙ্গে সরকারের নিপীড়ন নিয়ে কথা বলেন রায়হান কবির। এর জের ধরে ২৪ জুলাই গ্রেফতারের পর তাকে ১৪ দিনের রিমান্ডে নেয় পুলিশ।

আল জাজিরা-র এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, মত প্রকাশের স্বাধীনতা মৌলিক মানবাধিকার। সে কারণেই তারা রায়হান কবিরের গ্রেফতারকে উদ্বেগজনক মনে করছে। কারণ, রায়হান কণ্ঠহীন ও নিপীড়িত মানুষের পক্ষে কথা বলেছে। বিবৃতিতে বলা হয়, আল জাজিরা একটি মৌলিক মানবাধিকার হিসেবে মত প্রকাশের স্বাধীনতার প্রতি এর অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করছে। একে অপরাধ হিসেবে বিবেচনার কোনও সুযোগ নেই।

রায়হান কবিরের বাড়ি বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জের বন্দরে। তার বাবা শাহ আলম একটি পোশাক কারখানায় চাকরি করেন। ২০১৪ সালে তোলারাম কলেজে থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাস করে মালয়েশিয়া চলে যান রায়হান।