• আজ ৯ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ব্রাজিলে ৯৪ হাজারের বেশি প্রাণ কেড়ে নিল করোনা

১২:৪৭ অপরাহ্ণ | সোমবার, আগস্ট ৩, ২০২০ আন্তর্জাতিক
brazil

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ ব্রাজিলে করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা উত্তরোত্তর বাড়ছে। মহামারী শুরু হওয়ার পর থেকে এখন পর্যন্ত দেশটিতে ২৭ লাখ ৩০ হাজার মানুষ ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। আর মৃত্যু হয়েছে ৯৪ হাজার ১০৪ জনের। শুধু ব্রাজিলই নয়, করেনার ভয়াবহ ছড়িয়ে পড়েছে গোটা লাতিন আমেরিকার অন্যান্য দেশগুলোতেও।

এমন অবস্থায় করোনাকে বাগে আনতে দেশগুলোর সরকার মানুষকে ঘরে রাখতে চেষ্টা করছেন। কিন্তু অর্থনীতির চাকা সচল থাকা নিয়ে রয়েছে যত দুশ্চিন্তা। ফলে, সংকটাবস্থার মধ্যদিয়ে ব্রাজিল, পেরু, চিলি, ইকুয়েডর ও আর্জেন্টিার মতো দেশগুলোতে অনেক কিছুই চালু রয়েছে।

এর মধ্যে ব্রাজিলে সবচেয়ে ভয়াবহ অবস্থা। যা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। দেশটিতে আক্রান্তদের চিকিৎসা দিতে গিয়ে বেশ বিপাকে পড়তে হচ্ছে চিকিৎসা কেন্দ্রগুলোকে। অপরদিকে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা দ্বিতীয় দফায় করোনা আরও ভয়াবহ রূপ নিতে পারে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও ইউরোপে ধ্বংসযজ্ঞ চালানোর পর ভাইরাসটির এখন প্রধানকেন্দ্রে পরিণত হয়েছে দেশটি। একইসঙ্গে এ অঞ্চলের অন্যান্য দেশগুলোতে দ্রুত বিস্তার লাভ করায় পেরু, চিলি ও কলম্বিয়ার মতো দেশগুলোর প্রত্যেকটিতে আক্রান্ত দুই লাখ ছাড়িয়ে গেছে।

বিশ্বে করোনায় মৃতের সংখ্যার হিসেবে যুক্তরাষ্ট্র বাদ ব্রাজিল ও মেক্সিকোতে মৃতের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। এই দুটি দেশেই পুরো লাতিন আমেরিকার ৭০ শতাংশ মৃত্যু হয়েছে। ব্রাজিল ও মেক্সিকো ভাইরাসের সংক্রমণ বিস্তার ঠেকাতে ও অর্থনীতি পুনরায় চালু করতে গৃহীত পদক্ষেপের ভারসাম্য বজায় রাখতে পারেনি। মহামারির আগে থেকেই দুটি দেশে অর্থনৈতিক সংকট বিরাজ করছিল।

সংক্রমণের হারে সাতে থাকা পেরুতে আক্রান্ত ৪ লাখ ২৮ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। যেখানে মৃত্যু হয়েছে ১৯ হাজার ৬১৪৭ জন মানুষের। এ অঞ্চলের আরেক ভুক্তভোগী চিলিতেও সংক্রমণ ৩ লাখ ৬০ হাজারের কাছাকাছি। এর মধ্যে ৯ হাজার ৬০৮ জনের প্রাণ কেড়েছে করোনা। কলম্বিয়ায় শনাক্ত হয়েছে ৩ লাখ ১৭ হাজার রোগী। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ১০ হাজার ৬৫০ জনের। আর্জেন্টিনায় সংক্রমিতের সংখ্যা ২ লাখ ২ হাজার। মৃত্যু হয়েছে ৩ হাজার ৬৪৮ জনের।