শ্রীলঙ্কার সংসদ নির্বাচনে রাজাপাকসে ভাইদের নিরঙ্কুশ জয়

৫:৪১ অপরাহ্ণ | শুক্রবার, আগস্ট ৭, ২০২০ আন্তর্জাতিক
raha

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ শ্রীলঙ্কার পার্লামেন্ট নির্বাচনে নিজেদের জয়ী ঘোষণা করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকসে। প্রেসিডেন্টের ভাই মাহিন্দা রাজাপাকসে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব নিতে পারেন। গেলো বছরের নভেম্বর থেকে অস্থায়ীভাবে প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করছেন মাহিন্দা।

শুক্রবার চূড়ান্ত ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে। তাতে পার্লামেন্টের ২২৫টি আসনের মধ্যে ১৪৫টি জিতেছে প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপাকসের শ্রীলঙ্কা পোডুজানান পার্টি (এসএলপিপি) এবং তাদের জোট থেকে অন্তত আরও পাঁচটি আসন জিতেছে।

এসএলপিপির প্রধান প্রতিপক্ষ বুধবারের ভোটে মাত্র ৫৪টি আসন জিতেছে। এই নির্বাচনে ১৬.২ মিলিয়ন যোগ্য ভোটারের মধ্যে ৭৫ শতাংশের বেশি ভোট পড়েছে।

খুব সম্ভবত প্রধানমন্ত্রী তার ছোট ভাই প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকসের মাধ্যমে শপথ নেবেন। শুক্রবারের এই বিশাল বিজয় দুই ভাইকে সংবিধান পরিবর্তন করতে ও রাজবংশের শাসনকে আরও মজবুত করার সুযোগ করে দেবে।

টুইটারে গোতাবায়া রাজাপাকসে লিখেছেন, ‘এখন পর্যন্ত সরকারি ফলাফল অনুযায়ী শ্রীলঙ্কা পিপল’স ফ্রন্ট বিশাল জয় পেয়েছে। এমন একটি পার্লামেন্টের প্রত্যাশা ছিল যা আমার উন্নতির দৃষ্টিভঙ্গি প্রয়োগে সমর্থ হবে। আমার বিশ্বাস কাল থেকে তা বাস্তবে পরিণত হতে যাচ্ছে।’

উল্লেখ্য দুই দশক ধরে শ্রীলঙ্কার রাজনীতিতে আধিপত্য বিস্তার করে চলেছে বিতর্কিত রাজপাকসে পরিবার। এর আগে ২০০৫ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত দেশটির প্রেসিডেন্ট ছিলেন মাহিন্দা রাজাপাকসে। তার মন্ত্রিসভায় প্রতিরক্ষামন্ত্রী ছিলেন গোতাবায়া।

গোতাবায়ার বিরুদ্ধে শ্রীলঙ্কার চলাকালে মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগ রয়েছে। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ তিনি ভিন্ন মতাদর্শের মানুষকে লক্ষ্যবস্তু বানিয়েছেন। এ অভিযোগ তিনি সবসময়ই অস্বীকার করে আসছেন। বিশ্লেষকরা বলছেন, গোতাবায়া অস্বীকার করলেও সত্য আড়ালের কোনো সুযোগ নেই।

এদিকে বিরোধী দলের অবস্থান খুঁইয়েছে সাবেক প্রধানমন্ত্রী রণিল বিক্রমাসিংহের দল। চলমান সংসদে ১০৬টি আসন থাকলেও বুধবারের নির্বাচনে তার দল মাত্র এক আসনে জয় পেয়েছে। প্রধান বিরোধী দল হিসেবে আবির্ভূত হয়েছে ১৯৯৩ সালে গুপ্তহত্যার শিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট রানাসিংহে প্রেমাদাসার ছেলের দল।