‘ব্যাক্তি মুজিবকে হত্যা করা হলেও তাঁর আদর্শকে হত্যা করা যায়নি’- তোফায়েল

৮:১৭ অপরাহ্ণ | শনিবার, আগস্ট ১৫, ২০২০ জাতীয়
tofayel

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্কঃ আওয়ামী লীগ উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য তোফায়েল আহমেদ এমপি বলেছেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে খুনীরা মনে করেছিলো বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও আওয়ামী লীগ ধ্বংস হয়ে যাবে। কিন্তু আজকে প্রমান হয়েছে ব্যাক্তি মুজিবকে হত্যা করা হলেও তাঁর আদর্শকে হত্যা করা যায়নি।

ভোলায় শনিবার জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত জাতীয় শোক দিবসের আলোচনা সভায় ভার্চুয়াল সিস্টেমে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি।

তোফায়েল আহমেদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর নির্দেশিত পথে আমরা ৯ মাস য্দ্ধু করে ১৬ ডিসেম্বর এই দেশ স্বাধীন করি। পরে ১০ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধু পাকিস্তান কারাগার থেকে মুক্তি লাভ করে স্বাধীন দেশে ফিরে আসেন এবং য্দ্ধু বিধ্বস্ত বাংলাদেশের দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। যখন অল্প সময়ে সকল সংকট মোকাবেলা করে দেশকে স্বাভাবিক অবস্থায় আনেন তখনই ৭৫ এর ১৫ আগস্টে তাঁকে সপরিবারে হত্যা করা হয়।

তিনি বলেন, আজকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে চলছে। বঙ্গবন্ধুর দু’টি স্বপ্ন ছিলো, একটি দেশের স্বাধীনতা, অন্যটি দেশকে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত সোনার বাংলায় পরিণত করা। প্রথমটি তিনি করে গেছেন। কিন্তু দ্বিতীয়টি পূরণ করার আগেই তাঁকে হত্যা করা হয়। তাই বঙ্গবন্ধুর দ্বিতীয় স্বপ্নটি আমরা তাঁর কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাস্তবায়নের পথে এগিয়ে চলছি।

জাতির পিতার ঘনিষ্ঠ এই সহচর আরো বলেন, ৭৫ পরবর্তি সময়ে বঙ্গবন্ধুর নাম মুছে ফেলার চেষ্টা করা হয়েছিলো। ১৫ই আগস্ট আমরা মাইক বাজাতে পারতাম না। মিলাদ পড়তে, কাঙ্গালী ভোজ করতে পারতামনা। ইতিহাস পরিবর্তনের চেষ্টা করেছিলো। কিন্তু শেখ হাসিনার সরকার রাষ্ট্র পরিচালনার দ্বায়িত্ব নেয়ার পর সকলের সামনে সঠিক ইতিহাস তুলে ধরা হয়েছে। তরুণ সমাজ আজকে বঙ্গবন্ধুকে জানতে শিখেছে।

জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি দোস্ত মাহামুদের সভাপতিত্বে এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগ সম্পাদক জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবদুল মমিন টুলু, সহসভাপতি হামিদুল হক বাহালুল, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি উপজেলা চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগ সম্পাদক নজরুল ইসলাম গোলদার, জেলা আওয়ামী লীগ যুগ্ম সম্পাদক জহুরুল ইসলাম নকিব, জেলা আওয়ামী লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক মইনুল হোসেন বিপ্লব, পৌর আওয়ামী লীগ সম্পাদক শাহ আলী নেওয়াজ পলাশ প্রমুখ।

সকালে জেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে স্বাস্থ্যবিধি মানার জন্য শোক দিবসের প্রতীক হিসেবে কালো মাস্ক বিতরণ করা হয়। এরপর বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান দলীয় নেতারা।