• আজ ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ফেসবুকে ব্যক্তিগত ছবি পোস্টকারী পুলিশ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে মামলা করবেন শিপ্রা

৫:২০ অপরাহ্ণ | সোমবার, আগস্ট ১৭, ২০২০ আলোচিত বাংলাদেশ

সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা- কক্সবাজারে পুলিশের গুলিতে নিহত অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খানের সঙ্গে ‘ডকুমেন্টারি’ নির্মাণে যুক্ত শিপ্রা দেবনাথের ব্যক্তিগত ছবি ও ভিডিও নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যেভাবে প্রচার হচ্ছে, তাতে অসহনীয় হয়ে উঠেছে তার ব্যক্তিজীবন।

আজ সোমবার (১৭ আগস্ট) গণমাধ্যমের কাছে এক ভিডিও বার্তায় এ তথ্য জানিয়েছেন শিপ্রা দেবনাথ নিজেই। শুধু তাই নয়, ব্যক্তিগত ছবি ফেসবুকে পোস্টকারী পুলিশ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করবেন বলেও জানান তিনি।

নিহত মেজর (অব.) সিনহা মো. রাশেদের সহযোগী ও রাজধানীর স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শিপ্রা দেবনাথ বলেন, ‘মেজর সিনহা হত্যাকাণ্ডের পর রাতে এসে আমাদের কটেজ থেকে পুলিশ আমাদের দুটি মনিটর, ল্যাপটপ, ডেস্কটপ, ক্যামেরা, লেন্স, তিনটি হার্ডড্রাইভ এবং আমাদের ফোন ডিভাইস সব নিয়ে যায়। জব্দ তালিকায় যার কোনোটির কোনো উল্লেখ নেই। আমি জানি না, এখন কীভাবে বা কার কাছে সেসব ফেরত চাইব।’

‘আমাদের পার্সোনাল প্রোফাইল ও ডিভাইস থেকে বিভিন্ন ছবি চুরি করে কিছু বিকৃত মস্তিষ্কের দায়িত্বশীল অফিসাররাই ফেসবুক ও সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করেছেন। আমার নামে খোলা হয়েছে ফেক ফেসবুক ও ইনস্টাগ্রাম আইডি। আমার ব্যক্তিজীবনকে যারা অসহনীয় করে তুলেছেন বিভিন্ন ছবি ও ভিডিও তৈরির মাধ্যমে, তাদের প্রত্যেকের বিরুদ্ধে আমি তথ্য প্রযুক্তির ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করব, কথা দিলাম’, যোগ করেন তিনি।

শিপ্রা বলেন, আমি মনে করি আমার চরিত্র হননের চেষ্টার মাধ্যমে এদেশের বাইরে কাজ করা প্রতিটি নারীর প্রতি নিগৃহীত ও অপমান জনক আচরণ করা হয়েছে। কারণ, স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী নিজেও একজন নারী। তিনি নিশ্চয়ই আমাদের নারীদের এই অবস্থানগত নিরাপত্তার দিকে দৃষ্টি দেবেন।

তিনি বলেন, আমি একজন ছাত্রী, পড়াশোনার পাশাপাশি কাজ করি। একটি স্বাধীন দেশে একজন নারীর কারও অধিকার হরণ করে নিজের পছন্দ মতো বেঁচে থাকার অধিকার কি নেই? আমি মেজর সিনহা হত্যার বিচার চেয়ে আমি ও আমার সহকর্মীদের চরিত্র হননের অপচেষ্টার বিচার চাই, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সুনজর চাই। সেই সাথে দেশের সকল মানুষের নিরাপত্তার নিশ্চয়তা চাই।