সরকারি ঘর দেয়ার নামে ঘুষ আদায়, ইউএনও’র হস্তক্ষেপে টাকা ফেরত দিলেন ইউপি সদস্য

◷ ১:৪০ অপরাহ্ন ৷ মঙ্গলবার, আগস্ট ১৮, ২০২০ দেশের খবর, ময়মনসিংহ
Ime0 1

মিজানুর রহমান, নালিতাবাড়ী (শেরপুর) প্রতিনিধি- শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার যোগানিয়া ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আব্দুল মান্নানের বিরুদ্ধে সরকারি ঘর বরাদ্দের নামে ঘুষ বাণিজ্যের অভিযোগে উঠেছে।

এ নিয়ে ভুক্তভোগী দুই অসহায় ব্যক্তি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও)’র কাছে অভিযোগ করেন। পরে তার হস্তক্ষেপে অবশেষে সেই ঘুষের টাকা ফেরত দিতে বাধ্য হয়েছেন অভিযুক্ত ইউপি সদস্য আব্দুল মান্নান।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, এক বছর আগে ইউপি সদস্য আব্দুল মান্নান গেরামারা গ্রামের দিনমজুর আব্দুল হাকিম ও দুলাল মিয়ার কাছ থেকে দুইটি সরকারি ঘর দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে ৪০ হাজার টাকা ঘুষ নেন। কিন্তু সরকারিভাবে সেই দুটি পরিবারকে কোন ঘর বরাদ্দ দেয়া হয়নি এমনকি ঘর বরাদ্দ তালিকায় তাদের নামও নেই৷

বিষয়টি জানতে পেরে ভুক্তভোগী পরিবার দু’টি ইউপি সদস্যের কাছে তাদের দেয়া ৪০ হাজার টাকা ফেরত চায়, কিন্তু ইউপি সদস্য সেই টাকাটা দেই-দিচ্ছি বলে সময় ক্ষেপণ করতে থাকে৷ এক পর্যায়ে ভূক্তভোগী পরিবার দু’টি টাকা ফেরত না পেয়ে তারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার শরণাপন্ন হয়।

গতকাল সোমবার (১৬ আগস্ট) নির্বাহী কর্মকর্তা ওই ইউপি সদস্যের বাড়িতে গিয়ে ইউপি সদস্যকে না পেয়ে তার ছেলেকে উপজেলা কার্যালয়ে নিয়ে আসা হয় এবং মুঠোফোনে ইউপি সদস্যকে আসতে বলা হয়৷ পরে ইউপি সদস্য উপজেলা কার্যালয়ে না এসে লোক মারফত ৪০ হাজার টাকা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট ফেরত পাঠালে ইউপি সদস্যের ছেলেকে ছেড়ে দেয়া হয়৷

পরে আজ মঙ্গলবার (১৭ আগস্ট) ভূক্তভোগী পরিবার দুটি উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছ থেকে ৪০ হাজার টাকা ফেরত নেয়৷ এসময় টাকা ফেরত পেয়ে তারা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন৷

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোঃ আরিফুর রহমান বিষয়টি সময়ের কণ্ঠস্বরকে নিশ্চিত করেছেন।