করোনা নিয়েই অনুষ্ঠানে যোগ দিলেন সাংসদ সাহিদুজ্জামান

১:২০ অপরাহ্ণ | শনিবার, আগস্ট ২২, ২০২০ আলোচিত বাংলাদেশ

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্ক- প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েও অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছেন মেহেরপুর-২ আসনের সাংসদ মোহাম্মদ সাহিদুজ্জামান খোকন। গতকাল শুক্রবার রাতে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার এক প্রতিবাদ সভায় যোগ দেন।

শনিবার (২২ আগস্ট) জাতীয় দৈনিক প্রথম আলোর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, আওয়ামী লীগের সাংসদ মোহাম্মদ সাহিদুজ্জামান গত ১৩ আগস্ট সপরিবারে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন। উপজেলা প্রশাসনের লকডাউন স্টিকার ঝুলছে তাঁর বাড়িতে। এর মধ্যেই তিনি শুক্রবার ওই সভায় যোগ দেন অর্ধশতাধিক নেতা–কর্মী নিয়ে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, শুক্রবার রাত ৯টায় গাংনী পৌর শহরের থানা পাড়া সড়কে সাংসদের ভাড়া বাসার সামনে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে সাংসদ সাহিদুজ্জামান উপস্থিত থেকে বক্তব্য দেন।

সাহিদুজ্জামান গাংনী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি। তাঁর স্ত্রী লাইলা আরজুমান, ছেলে সাদিউজ্জামান সাইফ ও সামিউজ্জামান সামি করোনা পজিটিভ। পরিবারের সদস্য ছাড়াও সাংসদের ব্যক্তিগত গাড়িচালক শামীম পারভেজ, ব্যক্তিগত সহকারী সবুজ আহমেদ, সহকারী রাশেদ রাইহানেও করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে।

জানতে চাইলে জেলার সিভিল সার্জন নাসির উদ্দিন গণমাধ্যমকে বলেন, সাংসদ মোহাম্মদ সাহিদুজ্জামান সপরিবারে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন। ১৪ দিনের জন্য তার বাসভবন লকডাউন করা হয়েছে। সাংসদ দায়িত্বশীল হয়ে লকডাউন না মানলে কী করার আছে!

এ ব্যাপারে গাংনী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সেলিম শাহনেওয়াজ বলেন, সাংসদ সাহিদুজ্জামানের বাসা লকডাউন করার মাত্র ৯ দিন হয়েছে। দায়িত্বশীল ব্যক্তিদের সরকারি নির্দেশনা মানা উচিত।