🕓 সংবাদ শিরোনাম

বিএনপির এমপির কাছে খালেদার চেয়েও পরীমনির গুরুত্ব বেশি: তথ্যমন্ত্রীগৌরনদীতে জালভোট দেওয়া নিয়ে কেন্দ্রে সংঘর্ষ, নিহত ১সুনামগঞ্জে হিন্দুদের বাড়িতে হামলা: প্রধান আসামি সেই স্বাধীনের জামিনভালুকায় কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় ট্রাকের চালকসহ নিহত ৩বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরির দুর্ধর্ষ কাহিনি প্রকাশব্যবসায়ীর হাত-পা বেঁধে মুখে বালিশ চাপা দিয়ে হত্যা করেন তারাইউপি নির্বাচন: ভোলায় সংঘর্ষ ও গোলাগুলি, নিহত ১টাঙ্গাইলে একদিনে রেকর্ড ১৬৫ জন করোনায় আক্রান্ত, মৃত্যু ১হজের সুযোগ পাবেন ৬০ হাজার, নিবন্ধন পাঁচ লাখের বেশিদ্বিতীয় বিয়ের গুঞ্জনে মাহিকে প্রথম স্বামীর অভিনন্দন

  • আজ সোমবার, ৭ আষাঢ়, ১৪২৮ ৷ ২১ জুন, ২০২১ ৷

আফগানিস্তানে রাস্তার পাশে পুঁতে রাখা বোমা বিস্ফোরণে নিহত ৭

agan
❏ রবিবার, আগস্ট ২৩, ২০২০ আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলীয় গজনি প্রদেশে রাস্তার পাশে পুঁতে রাখা বোমা বিস্ফোরণে তিন নারী, দুই শিশুসহ ৭ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন। দেশটিতে যখন তালেবান ও সরকারের মধ্যে শান্তি আলোচনা শুরুর আগে এ ঘটনা ঘটলো।

আফগান প্রদেশীয় গভর্নরের মুখপাত্র ওয়াহিদুল্লাহ জুমাজাদা জানিয়েছেন, ভুক্তভোগীদের গাড়িটি রাস্তার পাশে পুঁতে রাখা বোমার সংস্পর্শে আসতেই প্রচণ্ড বিস্ফোরণ ঘটে। এতে গাড়ির সাত আরোহীই নিহত হয়েছেন।

আফগানিস্তানে যুদ্ধ পরবর্তী সময় হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে বর্তমান সময়টাকে। তালেবান ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে সমঝোতা এবং সরকারের সঙ্গে আলোচনার অগ্রগতির পরও দেশটিতে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির উন্নতি হয়নি। বরং এখনো দেশটির নাগরিকরা যুদ্ধ পরিস্থিতির মধ্যদিয়ে যাচ্ছেন।

সম্প্রতি জাতিংঘের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, দেশটিতে প্রায় ১ হাজার ৩শ’ মানুষ শুধু গত ৬ মাসে বিভিন্ন হামলায় নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন শত শত মানুষ। দেশটিতে হতাহতদের মধ্যে অন্তত ৪০ শতাংশ নারী ও শিশু। নারীরা বিভিন্ন সময় বিভিন্নভাবে ছোটবড় সহিংসতার শিকার হয়ে থাকেন। কখনো কখনো হামলার লক্ষ্যবস্তুতেও পরিণত হয়েছেন বেসামরিক লোকজন। যেখানে নারী ও শিশুর সংখ্যাই বেশি।

তবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী তালেবানের সব বন্দিকে মুক্তি দেয়ার কথা থাকলে নানা অজুতে কাবুল সরকার ৩২০ বন্দিকে এখনো মুক্তি দেয়নি। সরকার বলছে এসব বন্দির বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে এবং তারা মুক্তি পাওয়ার পর সহিংসতায় জড়াতে পারে। তাই তাদের মুক্তি না দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

এদিকে ফ্রান্সের ৫ নাগরিক হত্যার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তালেবানের শীর্ষ স্থানীয় ৩ যোদ্ধাকে মুক্তি না দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ।