আপাতত সোনিয়া গান্ধীই থাকলেন কংগ্রেসের নেতৃত্বে

⏱ ১১:২০ অপরাহ্ন | সোমবার, আগস্ট ২৪, ২০২০ 📂 আন্তর্জাতিক
sonia-gandhi-

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ কংগ্রেস সাংসদ সোনিয়া গান্ধীর ওপরই আপাতত ভারতের জাতীয় কংগ্রেসের অন্তবর্তীকালীন সভাপতির দায়িত্ব অর্পণ করা হয়েছে। আগামী ছয় মাস কংগ্রেসের অন্তর্বর্তীকালীন সভাপতির পদ সামলাবেন সোনিয়া। সোমবার দীর্ঘ সাত ঘণ্টার ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত হয়েছে।

বৈঠকে ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং আপাতত সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার প্রস্তাব করেন। আর তাতে নেতারা সমর্থন দেন।

সোনিয়া গান্ধী রোববার দলকে চিঠি দিয়ে জানান, অন্তর্বর্তীকালীন সভানেত্রীর পদে তিনি আর থাকতে চান না। এ কারণেই সোমবার দলের কার্যকরী কমিটির জরুরি বৈঠক ডাকা হয়।

এদিকে রাহুল গান্ধী বলেছেন, তিনি কোনওভাবেই আর কংগ্রেসের সভাপতি পদে ফিরতে চান না। তবে তিনি দলের হয়ে কাজ চালিয়ে যাবেন এবং বিজেপি নেতৃত্বাধীন আরএসএসের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক লড়াই করবেন।

প্রিয়াঙ্কা গান্ধীও দলের শীর্ষ পদের দায়িত্ব নিতে ইচ্ছুক নন। গান্দী পরিবারের বাইরের কাউকে দলের সভাপতি করতে তার অনাপত্তির কথাও জানিয়ে দিয়েছেন।

গত লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের শোচনীয় পরাজয়ের পরেই রাহুল গান্ধী দলের শীর্ষ পদ ছাড়েন। তারপরেই ৭৩ বছর বয়সী সোনিয়া গান্ধী সাময়িকভাবে দলের হাল ধরেন।

জানা গেছে দলের প্রবীণ নেতারা চান, ভোটের মাধ্যমে শীর্ষ নেতা নির্বাচন করা হোক। এ নিয়ে তারা সোনিয়া গান্ধীকে চিঠি লেখেন। আর তারপরই তিনি পদত্যাগের ইচ্ছা প্রকাশ করেন।

তবে দলের অনেক প্রবীন নেতাই গান্ধী পরিবারের বাইরের কাউকে সভাপতি মানতে নারাজ। ভারতের জাতীয় কংগ্রেসের মধ্যে যে বিভেদ চলছে তা এ ঘটনায় স্পষ্ট হয়ে উঠেছে।

বৈঠকে সোনিয়া ছাড়াও ছিলেন রাহুল গান্ধী, প্রিয়াঙ্কা গান্ধী, সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং, সাবেক কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী এ.কে.অ্যান্টনি, কংগ্রেস নেতা মুকুল ওয়াসনিক, আনন্দ শর্মা, গুলাম নবি আজাদ, পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিংসহ ওয়ার্কিং কমিটির সদস্যরা।

বৈঠকে সকলেই পূর্ণ সময়ের জন্য ‘দক্ষ ও গ্রহণযোগ্য’ সভাপতির দাবি জানান। পরে সোমবার সন্ধ্যায় ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকেই সর্বসম্মতভাবে স্থির হয় যে দলের অন্তবর্তীকালীন সভাপতি হিসাবে আগামী ছয় মাস সোনিয়া গান্ধীই কার্যভার চালাবেন এবং এই সময়ের মধ্যেই দলের নতুন সভাপতিকেও নির্বাচিত করা হবে।

বৈঠক শেষে কংগ্রেস নেতা কে. এইচ. মুনিয়াপ্পা জানান, ওয়ার্কিং কমিটিতেই সহমত পোষণ করা হয়েছে যে ম্যাডাম সোনিয়া গান্ধীই দলের নেতৃত্ব প্রদান করবেন এবং শিগগির নির্বাচনও হবে।