সংবাদ শিরোনাম
ভারতের ভ্যাকসিন সমগ্র মানবজাতির কল্যাণে ব্যয় করা হবে: মোদি | ‘সিগারেট খেয়েছি, ড্রাগস নয়..ড্রাগস নিত সুশান্ত’- সারা আলী খান | ৫ অক্টোবর ঢাকায় আসছেন ভারতের নতুন হাইকমিশনার | পাবনা-৪ আসন উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী নুরুজ্জামান বিশ্বাস বিজয়ী | ‘বাংলাদেশের বিপুল পরিমাণ ভ্যাকসিন উৎপাদনের সক্ষমতা রয়েছে’- শেখ হাসিনা | ‘মিয়ানমারকেই রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে হবে’- প্রধানমন্ত্রী | শেরপুরে শিশু গৃহকর্মীকে নির্যাতনের অভিযোগে আটক-১ | পদত্যাগ করলেন লেবাননের প্রধানমন্ত্রী মোস্তফা আদিব | নীলা হত্যা মামলা: প্রধান আসামি মিজান ৭ দিনের রিমান্ডে | ‘আওয়ামী মন্ত্রীদের কপালে দুশ্চিন্তার ভাঁজ পড়েছে’- রিজভী |
  • আজ ১২ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত করতে স্বার্থান্বেষী মহলের ইন্ধনে ষড়যন্ত্র চলছে: মেয়র মোস্তফা

৩:৫৯ অপরাহ্ণ | বুধবার, আগস্ট ২৬, ২০২০ দেশের খবর, রংপুর

সাইফুল ইসলাম মুকুল, রংপুর- রংপুর সিটি কর্পোরেশনের উন্নয়ন বাধাগ্রস্থ করতে মিথ্যা ও ভিত্তিহীন প্রতিবেদন প্রচারের অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছে মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা।

বুধবার (২৬ আগস্ট) দুপুরে সিটি কর্পোরেশন মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলনে মেয়র লিখিত বক্তব্যে বলেন, গত ১৭ আগস্ট একটি বেসরকারী টেলিভিশনে ২ জনের বিপরীতে ১০ জন নিয়োগ ও ২১ আগস্ট বিগত মেয়রের আমলে নিয়োগ করা ১৭৭ জন কর্মচারী ছাটাইয়ের অভিযোগ তোলা হয়। যা স্বার্থান্বেষী মহলের ইন্ধনে রংপুর সিটি কর্পোরেশনের উন্নয়ন কার্যক্রম বাধাগ্রস্ত করতে একটি ষড়যন্ত্র।

সিটি কর্পোরেশনে ২ জনের বিপরীতে ১০ জন নিয়োগের যে অভিযোগ তোলা হয়েছে ওই নিয়োগ এখনও প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। রংপুর সিটি কর্পোরেশনের বিশাল উন্নয়ন কর্মকান্ড পরিচালনা করতে ১ বছরের চুক্তির মাধ্যমে দৈনিক মজুরী ভিত্তিতে ১০ জন উপ-সহকারী প্রকৌশলী নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

বিগত মেয়র সরফুদ্দিন আহমেদ ঝন্টুর আমলে নিয়োগ দেয়া ১৭৭ জন কর্মচারীদের মধ্যে নিয়োগ প্রক্রিয়া যথাযথভাবে না হওয়ায় তদন্ত কমিটির মাধ্যমে সেখান থেকে ১১৬ জনকে নেয়া হয়। অবশিষ্ট ১১ জন উপসহকারী প্রকৌশলীসহ মোট ৬১ জন হাইকোর্টে রিট দায়ের করেছে। যা বিচারাধীন। রংপুর নগরীর উন্নয়নের স্বার্থে সিটি পরিষদের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও কাউন্সিলরদের পরামর্শে সকল নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হয়েছে বলে জানান রসিক মেয়র।

মেয়র আরও বলেন, বিগত মেয়র রংপুর সিটি কর্পোরেশনের একটি জনবল কাঠামো মন্ত্রণালয়ে অনুমোদনের জন্য পাঠায়। যেখানে ৮৬২ জনের জনবল কাঠামো উল্লেখ আছে। কিন্তু দাখিলকৃত জনবল কাঠামো এখন পর্যন্ত চুড়ান্ত অনুমোদন হয়নি। ফলে সিটি কর্পোরেশনের প্রায় ৭২০ কোটি টাকার চলমান উন্নয়ন ও প্রায় ১০ লাখের অধিক নাগরিককে সেবা দিতে জরুরী ভিত্তিতে সাড়ে ৩’শ টাকা থেকে সর্বোচ্চ সাড়ে ৪’শ টাকা দৈনিক মজুরীতে কিছু সংখ্যক শ্রমিক নিয়োগ দিয়ে সিটি কর্পোরেশনের কর্মকান্ড পরিচালনা করা হচ্ছে।

তিনি রংপুর সিটি কর্পোরেশনের উন্নয়নে সর্বস্তরের মানুষের সহযোগিতা কামনা করে বলেন, ভবিষ্যতে কোন তথ্য বিকৃত না করে যথাযথ কর্মকান্ডের ফিরিস্তি তুলে ধরে যাতে সংবাদ পরিবেশন করা হয়। সে লক্ষ্যে সকল তথ্য-উপাত্ত দিতে আমি প্রস্তুত।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, রংপুর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রুহুল আমিন মিঞা, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী এমদাদ হোসেন, প্যানেল মেয়র মাহমুদুর রহমান টিটু, কাউন্সিলর তৌহিদুল ইসলামসহ সিটি কর্পোরেশনের সকল কাউন্সিলররা।