সংবাদ শিরোনাম
‘আমি এমন একজনের ভোট পেয়েছি, যার নাম ডোনাল্ড ট্রাম্প’ | বার্সেলোনাকে হেসে খেলে হারিয়ে রিয়ালের এল ক্লাসিকো জয় | ‘আমি ক্ষমতায় থাকি বা না থাকি, বিরোধী দলের নেতারা ক্ষমতায় ফিরবে না’- ইমরান | বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে গিয়ে লাশ হয়ে ফিরলো প্রেমিকা! | গৃহকর্মী সাদিয়ার বাড়িতে শোকের মাতম, জড়িতদের ফাঁসির দাবি | তেঁতুলিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারালেন ২ জন | পঙ্গপালের আক্রমনে দিশেহারা ইথিওপিয়া, খাদ্য সংকট চরমে! | ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টের মানসিক পরীক্ষা করা দরকার: এরদোগান | চুল কেটে সিনেমা থেকে বাদ পড়লেন বাপ্পি চৌধুরী! | মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণ: অভিযুক্ত মাদ্রাসা সুপারকে আটক করেছে জনতা |
  • আজ ৯ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

আড়িয়াল খাঁর গর্ভে দুই শতাধিক বাড়িঘর বিলীন

৯:১৪ অপরাহ্ন | বুধবার, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০২০ ঢাকা
arial

কালকিনি (মাদারীপুর) প্রতিনিধিঃ মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলায় আড়িয়াল খাঁ নদের গর্ভে প্রায় দুইশতাধিক বাড়িঘর বিলীন হয়ে গেছে। এতে করে সব হারিয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছে ভাঙ্গন কবলিত মানুষ। ইতিমধ্যে কয়েকশত একর বিভিন্ন প্রকার ফসলি জমি নদী গর্ভে চলে গেছে।

এদিকে নতুন করে ভাঙ্গন আতঙ্কে রয়েছে নদীর পাড়ের প্রায় শতাধিক পরিবার ও বিভিন্ন শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান। যে কোন সময় রাক্ষুসী আড়িয়াল খাঁ নিয়ে যেতে পারে তাদের বাড়িঘর ও ফসলি জমি। প্রশাসনের কাছে অনেকেই ভাঙ্গন প্রতিরোধে বাবস্থা নেয়ার জন্য জোর দাবি জানিয়েছেন।

বুধবার দুপুরে সরেজমিন ও ভুক্তভোগী পরিবার সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার সাহেবরামপুর এলাকার পূর্ব সাহেবরামপুর ও নতুন আন্ডারচর গ্রামের উপর দিয়ে বয়ে গেছে আড়িয়াল খাঁ নদ। বছরের পর বছর আড়িয়াল খাঁর তান্ডবে বিলীন হয়ে গেছে হাজারো বাড়িঘর।

এ বছর নতুন করে আড়িয়াল খাঁ নদে গর্ভে চলে গেছে পূর্ব সাহেবরামপুর গ্রামের আক্কাশ আকন, মোয়াজ্জেম ফকির, শিরাজ ফকির, মোশারপ সরদার, শাহাবুদ্দিন সরদার, মোকলেশ সরদার, ফিরোজ ভুইয়া, আরিফ ভুইয়া, সঙ্কল সরদার, হিরন সরদার, মজিবর সরদার, আলাউদ্দিন সরদার, সাগর আলী, জসিম সরদার ও ইউপি সদস্য আদেল বেপারীর বসতঘরসহ প্রায় শতাধিক বাড়িঘর।

এ ছাড়া নতুন করে বর্তমানে ভাঙ্গন আতঙ্কে রয়েছে সজীব বেপারী, সুলতান বেপারী, স্বপন বেপারী, কালাম বেপারী, মন্টু সরদার, বাদশা হাওলাদার, আলী সরদার, আলিম সরদার, শাহাদাত সরদার, সবুজ সরদার, শাহিন সরদার, লতিফ সরদার, আজিজুল ফকির ও সোহাগ ফকিরসহ শতাধিক বাড়িঘর।

অপরদিকে বর্তমানে নতুন আন্ডারচর গ্রামের চানমিয়া সরদার, বজলু সরদার, কামাল হাওলাদার, বিউটি বেগম, হাচিনা বেগম ও দাদন সরদারের বাড়িঘর আড়িয়াল খাঁ নদে বিলিন হয়ে গেছে। নদী ভাঙ্গন আতঙ্কে রয়েছে নতুন আন্ডারচর বঙ্গবন্ধু কলেজ ও নবারুন উচ্চ বিদ্যালয়সহ বেশ কয়েকটি শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান। ভাঙ্গন কবলিত মানুষ তাদের ভিটামাটি হারিয়ে পুরোপুরি নিঃস্ব হয়ে পড়েছেন।

স্থানীয় বাসিন্দা সাদিকুর রহমান ও হাচিনা বেগমসহ বেশ কয়েকজন বলেন, ভাঙ্গন প্রতিরোধে ব্যবস্থা না নেয়া হলে আমাদের পুরো গ্রাম নদীর পেটে চলে যাবে। প্রশাসন কোন পদক্ষেপ নিচ্ছেনা।

আন্ডারচর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা মোয়াজ্জেম হোসেন বলেন, আড়িয়াল খাঁ নদ বিগতদিনে হাজারো বসবাড়ি কেড়ে নিয়েছে। বর্তমানে জরুরী ভিত্তিতে ভাঙ্গন প্রতিরোধের ব্যবস্থা না করা হলে বাকি ফসলি জমি ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কোনমতে বাঁচানো সম্ভব হবে না।

সাহেবরামপুরের স্থানীয় ইউপি সদস্য মোঃ রুহুল আমিন বেপারী বলেন, বর্তমানে আড়িয়াল নদে গর্ভে পুর্ব সাহেবরামপুর গ্রামের ১১ একর ফসলি জমি চলে গেছে। বর্তমানে নতুন করে দেড় কিলোমিটার এলাকারজুরে ভাঙ্গন শুরু হয়েছে। আমরা প্রশাসনের সহযোগীতা চাই।

এ ব্যাপারে মাদারীপুর জেলা পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী পার্থ প্রতীম সাহা বলেন, নদী ভাঙ্গন রোধে কাজ করা হচ্ছে। বাকিটা দ্রুত সময় হয়ে যাবে।