বন্ধুকে দিয়ে জোড়পূর্বক নিজের স্ত্রীকে ধর্ষণ, লম্পট স্বামী গ্রেফতার

৭:১৯ অপরাহ্ণ | শুক্রবার, অক্টোবর ৯, ২০২০ ময়মনসিংহ
aaa

জামালপুর প্রতিনিধিঃ বকশীগঞ্জে অনৈতিক কাজে রাজি না হওয়ায় বন্ধুকে দিয়ে জোড়পূর্বক নিজের স্ত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে লম্পট স্বামী রাশেদ মিয়া (৩০) কে গ্রেফতার করেছে বকশীগঞ্জ থানা পুলিশ।

শুক্রবার ভোরে নিজ বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। ধর্ষক মোশারফ হোসেন পলাতক রয়েছে। উপজেলার নিলক্ষিয়া ইউনিয়নের বিনোদের চর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। লম্পট রাশেদ মিয়া উপজেলার বিনোদের গ্রামের মন্ডল মিয়ার ছেলে ও ধর্ষক মোশারফ মিয়া প্রতিবেশী পাগলাপাড়া গ্রামের নেহাল মিয়ার ছেলে।

মামলা সুত্রে জানা যায়, টাকার লোভে দীর্ঘদিন যাবত লম্পট স্বামী রাশেদ তার স্ত্রীকে অন্য মানুষের সাথে অনৈতিক কাজ করার জন্য চাপ দিয়ে আসছিলো। অনৈতিক কাজে রাজি না হওয়ায় স্ত্রীকে শারীরিক নির্যাতন করে লম্পট স্বামী রাশেদ।

গত বুধবার রাতে বন্ধু মোশারফকে বাড়িতে ডেকে আনে রাশেদ। পরে তার স্ত্রীকে বন্ধু মোশারফের সাথে অনৈতিক কাজের জন্য চাপ সৃষ্টি করে। স্ত্রী রাজি না হওয়ায় পরবর্তীতে লম্পট স্বামী রাশেদের সহায়তায় জোড় পূর্বক ধর্ষণ করে লম্পট মোশারফ হোসেন। এই ঘটনা কাউকে জানালে কিংবা অভিযোগ দিলে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেয়া হয়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এস.আই আকিকুল হোসেন জানান, অভিযোগের পরেই অভিযান চালিয়ে লম্পট স্বামী রাশেদ মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়। অপর আসামী ধর্ষক মোশারফ হোসেনকে গ্রেফতারে পুলিশি অভিযান অব্যহত রয়েছে।

বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শফিকুল ইসলাম সম্রাট জানান, ধর্ষিতার স্বামী লম্পট রাশেদ মিয়াকে গ্রেফতার করে আদালতে প্রেরণ ও ধর্ষিতার ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য জামালপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ধর্ষক মোশারফকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।