সংবাদ শিরোনাম

বিমানের টিকিটের জন্য জমানো টাকায় তরুণকে ইজিবাইক কিনে দিলেন সুমন | মৌলবাদী গোষ্ঠী ধর্মীয় সংগঠন করে রাজনৈতিক খায়েশ মেটাচ্ছে: শিক্ষা উপমন্ত্রী | ‘আওয়ামী লীগ-বিএনপি লড়াই নাই, দেশের মানুষ ভাই ভাই'- বাবুনগরী | নাগরিকদের বিনামূল্যে করোনা ভ্যাকসিন দেবে মালয়েশিয়া | ছেলের নামে টুর্নামেন্টের আয়োজন করে খেলোয়াড়দের পেটালেন ইউএনও! | ভাস্কর্য আমার বাবার হলেও টেনেহিঁচড়ে ফেলে দেবো: বাবুনগরী | মাহফিলে বক্তব্য না দিয়েই ঢাকায় ফিরে গেলেন মামুনুল হক | ঝিকরগাছায় ধানের বাম্পার ফলন, কৃষকের মুখে খুশির ঝিলিক | অনলাইনে ১৬ লাখ টাকার ফ্যান কিনে পেলেন ঝুট কাপড় ও ইট! | সন্ত্রাসী হামলায় ইরানের জ্যেষ্ঠ পরমাণুবিজ্ঞানী নিহত |

  • আজ ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

এবার ফ্রান্সের পণ্য বয়কটের ডাক দিলেন জাকির নায়েক

১০:০১ অপরাহ্ন | বুধবার, অক্টোবর ২৮, ২০২০ ইসলাম
zakir

ইসলাম ডেস্কঃ বাক-স্বাধীনতার দোহাই দিয়ে মহানবী মুহাম্মদ (সা.)-এর ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ অব্যাহত রাখতে ধর্মনিরপেক্ষ আইনকে সমর্থন দেয়ায় ফ্রান্স এবং দেশটির প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর বিরুদ্ধে বিশ্বের বিভিন্ন মুসলিম দেশে বিক্ষোভ, নিন্দা জানানোর পাশাপাশি ফরাসি পণ্য বর্জন অব্যাহত রয়েছে।

এরই ধারাবাহিকতায় ফ্রান্সের পণ্য বয়কটের ডাক দিয়েছেন ডা. জাকির নায়েক। মহানবীকে নিয়ে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর বিতর্কিত মন্তব্যের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তিনি এই আহ্বান জানান।

ডা. জাকির নায়েক তাঁর ভেরিফায়েড ফেসবুক পোস্টে বলেন, ফ্রান্স বিশ্বনবী হজরত মোহাম্মদ (সা.)-কে অপমান করেছে এবং বিশ্বজুড়ে মুসলমানদের ক্ষুব্ধ করেছে। এখনই ফরাসি সব পণ্য এবং পরিষেবা বয়কট করুন।

তিনি তাঁর পোস্টে ফ্রান্সের বিভিন্ন পণ্য ও সেবাদানকারী কম্পানির লোগো এবং তালিকা প্রকাশ করেন। মুহূর্তেই তা কয়েক লাখ প্রতিক্রিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। এ নিয়ে তিনি বেশ কয়েকটি পোস্ট করেন। এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত তাঁর ৯ ঘণ্টা আগে দেওয়া পোস্টটিতে দেড় লাখেরও বেশি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারী প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন। মন্তব্য পড়েছে ১৪ হাজারেরও বেশি। আর শেয়ার করা হয়েছে ২৮ হাজার বার।

উল্লেখ্য, ফ্রান্সে স্যামুয়েল প্যাটি নামের এক ইতিহাস শিক্ষক ক্লাসে বাকস্বাধীনতা বিষয়ে পাঠদানের সময় নবী মুহাম্মদ (সা.)-এর কার্টুন দেখান। যার জেরে গত ১৬ অক্টোবর চেচেন বংশোদ্ভূত এক ব্যক্তি ছুরি হাতে ওই শিক্ষককে আক্রমণ করে এবং তার শিরশ্ছেদ করে।

এ ঘটনা ফ্রান্সে তীব্র আলোড়ন সৃষ্টি করে। অনেক ফরাসি ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানান। দেশটির প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ এ হত্যাকাণ্ডের নিন্দা জানিয়ে ধর্মনিরপেক্ষ ফরাসি মূল্যবোধ সুরক্ষিত রাখা এবং ইসলামি মৌলবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের অঙ্গীকার করেন।