চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পরদিনই বিএনপি নেতার বিরুদ্ধে পুলিশের মামলা

১০:৪৬ অপরাহ্ন | শনিবার, অক্টোবর ৩১, ২০২০ দেশের খবর

সময়ের কন্ঠস্বর ডেস্ক: বিএনপি মনোনীত প্রার্থী হিসেবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পরদিনই তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে পুলিশ।

সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যানসহ ১৫৫ জন বিএনপি নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে নির্বাচনের দিন পুলিশের উপর হামলা, নির্বাচনী সরঞ্জাম বহনকারী গাড়ি ভাংচুর ও সরকারি কাজে বাধা দেয়ার অভিযোগে মামলা দায়ের হয়।

শুক্রবার দিবাগত রাতে বিশ্বনাথ থানার এসআই নুর হোসেন বাদি হয়ে এই মামলাটি দায়ের করেন। মামলার এজাহারে নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান এমাদ উদ্দিন খানকে প্রধান আসামি করে ৩৫ জনের নাম উল্লেখ করা হয়। এছাড়াও ওই মামলায় আরও ১০০/১২০ জনকে অজ্ঞাতনামা আসামি রাখা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, গত বৃহস্পতিবার দশঘর ইউনিয়ন নির্বাচনের পর দশঘর এনইউ উচ্চবিদ্যালয় ভোটকেন্দ্র থেকে সন্ধ্যায় ব্যালট বাক্স ও নির্বাচনী সরঞ্জাম নিয়ে উপজেলা সদরে ফেরার সময় পুলিশের উপর হামলা করে আসামিরা।

এসময় নির্বাচনী সরঞ্জাম বহনকারী একটি পিকআপ ট্রাকের গ্লাস ভেঙে যায়। পরে পুলিশ ৫ রাউন্ড শর্টগানের গুলি চালিয়ে হামলাকারীদের হাত থেকে রা পেয়ে উপজেলা সদরে পৌঁছে।

এদিকে মামলা হওয়ার পর থেকে নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান এমাদ খানের মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

এ বিষয়ে থানার ওসি শামিম মুসা মামলা দায়েরের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আসামিদের গ্রেফতার করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।