বেনাপোলে মিথ্যা ঘোষনা দিয়ে পণ্য আমদানি : ৫ কোটি টাকার পণ্যের চালান আটক

benapole
❏ সোমবার, নভেম্বর ১৬, ২০২০ খুলনা

মহসিন মিলন, বেনাপোল  প্রতিনিধি: বেনাপোল বন্দরে ব্লিচিং পাউডার ঘোষণা দিয়ে কফি ও ওষুধ জাতীয় পণ্য  আমদানির অভিযোগে ভারতীয় একটি ট্রাক আটক করেছে কাস্টমস কর্মকর্তারা।

আজ সোমবার পণ্য চালানটি শতভাগ কায়িক পরীক্ষা করে  ৬,৪২০ টনের এই মিথ্যা ঘোষনার পন্য আটক করা হয়।

কাস্টমস এর সহকারী কমিশনার কল্যান মিত্র জানান, ঢাকার আমদানি কারক প্রতিষ্ঠান এম এস রিড এন্টার প্রাইজ ভারত থেকে ৬,৪২০ টনের একটি ব্লিচিং পাউডারের চালান আমদানি  করেন। পন্যচালানটি বেনাপোল বন্দরে প্রবেশেকালে বন্দরের ৩২ নাম্বার শেডের সামনে থেকে গোপন সুত্রে খবর পেয়ে কাস্টমস এর আই আর এম টিম  ট্রাক সহ পণ্যচালানটি  আটক করে। পণ্যটি বন্দর থেকে ছাড় করানোর দায়িত্বে নিয়োজিত ছিলেন, সিএন্ডএফ এজেন্ট রিয়াংকা ইন্টারন্যাশনাল।

বেনাপোল সিএন্ড এফ এজেন্টস এসোসিয়েশনের সভাপতি মফিজুর রহমান সজন জানান, ইদানিং বেনাপোল বন্দরে মিথ্যা ঘোষণার পণ্য চালান আমদানি বেড়েই চলেছে। বন্দরের স্টোর কিপারকে ম্যানেজ করে কতিপয় অসাধু ব্যক্তি সরকারের রাজস্ব ফাঁকির উৎসবে মেতেছে। তবে মাঝে মধ্যে দুই একটা চালান আটক হলেও অধিকাংশ থাকছে ধরা ছোঁয়ার বাইরে। আইনের ফাঁক-ফোকর দিয়ে দুর্নীতিবাজ ব্যবসায়ীরাও থেকে যায় আড়ালে। ফলে কোনোভাবে মিথ্যা ঘোষণায় আমদানি বন্ধ হচ্ছে না।

বেনাপোল কাস্টমস কমিশনার আজিজুর রহমান জানান, রাজস্ব ফাকির বিষয়ে জিরো টলারেন্স ভূমিকা গ্রহন করা হয়েছে। ইতিপূর্বে ৭টি পণ্য চালান আটক করা হয়েছে। ৫ কোটি টাকার বেশী জরিমানা আদায় করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ৭ লাইসেন্স  বাতিল করা হয়েছে রাজস্ব ফাকির অভিযোগে।