টাঙ্গাইলে তিন মিনিটে তিন ছিনতাই, তিন আসামি গ্রেফতার

১১:১১ অপরাহ্ন | বুধবার, নভেম্বর ১৮, ২০২০ ঢাকা
tangail

অন্তু দাস হৃদয়, স্টাফ রিপোটারঃ টাঙ্গাইলে তিন মিনিটের ব্যবধানে তিন ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে। গত ১৫ নভেম্বর শহরের কলেজ পাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে ১৭নভেম্বর ভুক্তভোগী সদর উপজেলার বাসাখানপুর গ্রামের মো. মহির উদ্দিনের ছেলে দয়াল হোসেন (২৯) বাদি হয়ে টাঙ্গাইল সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

মামলার পর তিন আসামীকে গেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে পুলিশ। বিষয়টি টাঙ্গাল সদর থানার এসআই মো. মোরাদুজ্জামান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- শহরের দিঘুলিয়া মধ্যপাড়া এলাকার মৃত প্রদীপ মিয়ার ছেলে মো.কলিং (৩৩), থানা পাড়া এলাকার মো. শহিদুল ইসলাম স্বাধীনের ছেলে মো. শাহেদ (৪০), বেপাড়ী পাড়া এলাকার সিরাজ মিয়া ওরফে শিরু মিয়ার ছেলে কালো সজিব (৩০)। এ ঘটনায় দক্ষিণ কলেজ পাড়া এলাকার মৃত আব্দুল জলিলের ছেলে মো. রফিক (৩৫) পলাতক রয়েছে।

মামলা সূত্রে ও স্থানীয়রা জানান, গত ১৫ নভেম্বর রোববার ভোরে দয়াল হোসেন তার চাচাকে সাথে নিয়ে বাড়ি থেকে করটিয়া যাওয়ার সময় কলেজপাড়া এলাকায় পৌছালে ছিনতাইকারীরা ছুরি, চাপাতি ও রড নিয়ে পথ রোধ করে ভয়ভীতি দেখিয়ে তাদের সাথে থাকা একটি স্মার্ট ফোন ও নগদ ১৭৫০ টাকা ছিনতাই করে।

পরে, শিপন মিয়ার বাসার সিসি টিভির ফুটেজ দেখে ছিনতাই কারীদের শনাক্ত করা হয়। ১৭ নভেম্বর মামলা দায়ের করলে আসামীদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। ওই দিন একই সময়ে একই স্থানে ছিনতাইকারীরা সাইকেল আরোহী ও সিএনজি আরোহীদের ছিনতাই করেন।

এ প্রসঙ্গে টাঙ্গাইল সদর থানার এসআই মো. মোরাদুজ্জামান সময়ের কণ্ঠস্বর’কে বলেন, ‘সিসি টিভির ফুটেজ দেখে প্রথমে কলিংকে আটক করে ছিনতাই হওয়া একটি স্মার্ট ফোন ও নগদ এক হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়। পরে কলিং এর দেওয়া তথ্য অনুযায়ি শাহেদ ও কালো সজিবকে গ্রেফতার করা হয়। অপর আসামীকে গ্রেফতার করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে তিনি জানান।