মুজিববর্ষ উপলক্ষে বাংলাদেশ সফরের সম্মতি দিয়েছেন এরদোয়ান: তথ্যমন্ত্রী

hasan
❏ বুধবার, ডিসেম্বর ২, ২০২০ জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্কঃ তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‘বাংলাদেশ ও তুরস্কের মধ্যে সম্পর্ক ঐতিহাসিক। সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রেও আমাদের অনেক মিল রয়েছে। আজ আমরা মুজিববর্ষ নিয়ে আলোচনা করেছি। এ উপলক্ষে তুরষ্কের প্রেসিডেন্ট এরদোয়ানকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। তিনি আসবেন বলে সম্মতিও দিয়েছেন।’

বুধবার (০২ ডিসেম্বর) তথ্য মন্ত্রণালয়ে তুরস্কের রাষ্ট্রদূত মুস্তফা ওসমান তুরানের সৌজন্য সাক্ষাৎ ও সংক্ষিপ্ত ব্রিফিং শেষে তথ্যমন্ত্রী এ কথা বলেন।

এ সময় তুরস্কের রাষ্ট্রদূত বলেন, “বন্ধুত্বপূর্ণ দুই দেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতার বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। আশা করি আমরা মুজিববর্ষের সমাপনী অনুষ্ঠানে যোগ দেবো। বঙ্গবন্ধু হচ্ছেন বাংলাদেশের প্রতীক আর কামাল আতাতুর্ক হচ্ছেন তুরস্কের প্রতীক। আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি, এই দুই নেতার ভাস্কর্য দুই দেশে স্থাপন করবো। আঙ্কারায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের এবং ঢাকায় কামাল আতাতুর্ক এভিনিউয়ে কামাল আতাতুর্কের। শিগগিরই এই ভাস্কর্য স্থাপন করা হবে। ইস্তাম্বুল ও চট্টগ্রামেও এ ধরনের কিছু করা যায় কি না তা নিয়েও আমরা আলোচনা করেছি।”

তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেন, “আজকে মূলত তুরস্ক রাষ্ট্রদূতের সৌজন্য সাক্ষাৎ ছিল। বাংলাদেশ ও তুরস্কের মধ্যে সম্পর্ক ঐতিহাসিক। আমরা আজকে মুজিববর্ষ উপলক্ষে আলোচনা করেছি।”

তিনি বলেন, “সার্বিকভাবে শুধু মুজিববর্ষ নয়, আগামী বছর আমাদের স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী। সে উপলক্ষেও কীভাবে আমরা মিডিয়া ও জার্নালিস্টদের প্রশিক্ষণ আদান-প্রদান করতে পারি সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেছি।”

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন