সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ১৫ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ফরিদপুরে ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হল পুলিশ সদস্যের দুই পা

১০:২৩ পূর্বাহ্ন | বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ১০, ২০২০ ঢাকা
পুলিশ

হারুন-অর-রশীদ, ফরিদপুর প্রতিনিধি: ফরিদপুর ভাঙ্গায় মর্মান্তিক এক সড়ক দুর্ঘটনায় ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়েছে শাহ আলম (২৬) নামের এক পুলিশ সদস্যের দুই পা।

বুধবার (৯ ডিসেম্বর) দুপুরে ভাঙ্গা উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকা ও ঝাটুকদিয়ার মধ্যবর্তী স্থানে মাওয়া-ভাঙ্গা-খুলনা মহাসড়কে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে। এ ঘটনায় মো.জসিমুদ্দিন (৩০) নামের এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

আহত ব্যক্তি, গোপালগঞ্জ সদরের ফজর আলী শেখের ছেলে ও মাদারীপুরের শিবচর ভদ্রাসন থানায় দায়িত্বরত একজন পুলিশ সদস্য। এ ঘটনায় আটক হয়েছেন পটুয়াখালীর সদর থানার আব্দুস সালাম চৌকিদারের ছেলে ও ওই ট্রাকের ড্রাইভার।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে, গত শুক্রবার শাহ আলম ছুটি নিয়ে বাড়িতে যান। ছুটি শেষে আজ সকালে গোপালগঞ্জ থেকে মোটর সাইকেলে তার কর্মস্থল শিবচরের ভদ্রাসনের উদ্দেশ্যে রওন হন। এসময় ঘটনাস্থলে পৌঁছালে অপর দিক ভাঙ্গা থেকে গোপালগঞ্জ গামী একটি ট্রাকের মুখোমুখি হলে সে নিয়ন্ত্রণ হারায়।

ট্রাকের চাকার নিচে মোটরসাইকেলসহ তার দু’পা পিষ্ট হয়ে সড়কে ছিটকে পড়েন। খবর পেয়ে ভাঙ্গা হাইওয়ে থানা পুলিশ তাকে গুরত্বর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে ভাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে।

ভাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. আসমাউল হুসনা জানান, সড়ক দুর্ঘটনায় ওই পুলিশ সদস্যের দু’পায়ের একটি পাঁ বিচ্ছিন্ন ছিল, প্রচুর রক্তক্ষরণে তার শরীরে রক্ত শূন্যতা দেখা দিয়েছে। ভাঙ্গা থেকে তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়। সেখানে তার অবস্থার আরও অবনতি হওয়ায় পরে সেখানকার চিকিৎসক তাকে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে প্রেরণ করেছেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ভাঙ্গা হাইওয়ে থানার ওসি মো. ওমর ফারুক জানান, এ ঘটনায় একটি ট্রাক ঢাকা মে:ট ১৩-১৭৩৩ ও একটি মোটর সাইকেল ঢাকা মে:হ ৪৩-৬৭৬৪ সহ ঘাতক ট্রাকটির ড্রাইভারকে আটক করা হয়েছে। হেলপার পলাতক রয়েছে। মামলা প্রস্তুতি চলছে।