সংবাদ শিরোনাম

সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ সস্ত্রীক করোনায় আক্রান্তরোহিঙ্গা শিশু অপহরণের পর হত্যার ঘটনায় নারীসহ দু’জন গ্রেপ্তারবেলকুচিতে দূর্বৃত্তদের আগুনে পুড়ে গেল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান !জামালপুরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে রাতভর ধর্ষণ, গ্রেফতার মাদ্রাসার শিক্ষক‘করোনাকালের নারী নেতৃত্ব: গড়বে নতুন সমতার বিশ্ব’বগুড়ায় শিক্ষা প্রনোদনা পেতে প্রত্যয়নের নামে টাকা নেয়ার অভিযোগজামালপুরে ধর্ষণ মামলায় ধর্ষকের যাবজ্জীবনপাবনায় অবৈধ অস্ত্র তৈরির কারখানায় অভিযান, চারটি আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেফতার-২উপজেলা আ.লীগের সভাপতিকে ‘পেটালেন’ কাদের মির্জা!কে কত বড় নেতা, সবাইকে আমি চিনি: কাদের মির্জা

  • আজ ২৪শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে শিশুকন্যা চুরি

৬:২১ অপরাহ্ন | বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ২৪, ২০২০ রাজশাহী
news photo

নাটোর প্রতিনিধি- নাটোরের গুরুদাসপুরে তাইবা নামে দুই মাস বয়সী একটি শিশুকন্যা চুরির ঘটনা ঘটেছে। বুধবার সকালে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এই চুরির ঘটনা ঘটে।

এই ঘটনার পর থেকে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসা অন্যান্য রোগীর স্বজনদের মাঝে আতংক বিরাজ করছে। চুরি যাওয়া শিশু তাইবা উপজেলার মশিন্দা মাঝপাড়া গ্রামের তফিজ উদ্দিন ও সীমা খাতুন দম্পতির একমাত্র কন্যা।

গুরুদাসপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুর রাজ্জাক ও উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মোজাহিদুল ইসলাম জানান, বুধবার সকালে সীমা খাতুন ঠান্ডাজনিত সমস্যার কারণে তার দুই মাসের শিশুকন্যা তাইবাকে সাথে নিয়ে গুরুদাসপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডাক্তার দেখানোর জন্য আসেন।

এ সময় বহির্বিভাগে লাইনে অনেক ভিড় থাকায় পাশে থাকা অজ্ঞাত বোরকা পাড়া এক মহিলা সীমা খাতুনকে আপা বলে সম্মোধন করে বাচ্চাটিকে তার কোলে দিয়ে ডাক্তার দেখাতে বলে।

এ সময় সীমা সরল বিশ্বাসে তার শিশুকন্যাকে ঐ মহিলার কাছে দিয়ে ডাক্তার দেখানোর জন্য যান। কিছু সময় পর সিমা খাতুন ফিরে এসে দেখেন অজ্ঞাত মহিলাসহ শিশুকন্যা তাইবা সেখানে নেই। পরে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বিভিন্ন স্থানে হন্তদন্ত হয়ে খোঁজাখুজি শুরু করেন তিনি।

খোঁজাখুঁজি করে না পাওয়া গেলে বিষিয়টি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ও পুলিশকে অবহিত করা হয়। ঘটনার পর পুলিশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে এবং বিভিন্ন স্থানে চেকপোষ্টসহ অভিযানে নেমে শিশুকন্যাকে উদ্ধারের জন্য চেষ্টা শুরু করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় এখনো কোন মামলা দায়ের হয়নি।

গুরুদাসপুর উপজেলা কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মোজাহিদুল ইসলাম জানান, ঘটনার পরপরই পুলিশকে বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে। তাদেরকে হাসপাতালের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সরবরাহ করা হয়েছে।

শিশুটি উদ্ধারে আইন শৃঙ্গলা বাহিনীকে সবরকম সহায়তা দেয়া হচ্ছে। দ্রুত সময়ের মধ্যেই শিশু তাইবাকে উদ্ধার করা সম্ভব হবে আশা প্রকাশ করেন তিনি।