মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার : তানোর ৫৭ পরিবার পাবে জমিসহ ঘর

◷ ৬:১৫ অপরাহ্ন ৷ রবিবার, জানুয়ারী ১০, ২০২১ রাজশাহী
RAJSHAHI VUMIHIN PAB

অসীম কুমার সরকার, রাজশাহী প্রতিনিধি : মুজিববর্ষ উপলক্ষে রাজশাহীর তানোর উপজেলার ৫৭ ভূমিহীন পরিবার পাবে প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘর। ‘আশ্রয়নের অধিকার শেখ হাসিনার উপহার’ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে গৃহ ও ভূমিহীন ৫৭ পরিবারের জন্য নির্মিত হচ্ছে ঘর।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিস সূত্রে জানা যায়, তানোর উপজেলার ৫ টি ইউনিয়নে গৃহ ও ভূমিহীন ৫৭ পরিবারের মাঝে বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ঘর ও ২ শতাংশ জমি। দুর্যোগ মন্ত্রণালয়ে বরাদ্দকৃত ২০২০-২১ অর্থ বছরের আওতায় একটি ঘরের জন্য মোট ১ লক্ষ ৭১ হাজার টাকা ব্যয় ধরা হয়েছে।

এসব ঘরে দুইটি কক্ষ, বারান্দা, রান্নাঘরসহ সকল ধরনের সুযোগ-সুবিধা থাকছে। ঘরগুলো নির্মাণে সার্বিক তদারকি করছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার, সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যানগণ।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা তারিকুল ইসলাম জানান, সরকারি খাস জায়গায় উপজেলার কলমা ইউনিয়নে ১৯ টি, বাধাইড় ইউনিয়নে ১৪ টি ও পাঁচন্দর ইউনিয়নে ৬,সরনজাই ইউনিয়নে ১৩টি ও চাঁন্দুড়িয়া ইউনিয়নে ৫টি টিসহ মোট ৫৭ টি ঘর নির্মিত হচ্ছে গৃহ ও ভূমিহীনদের জন্য।  জানুয়ারির মধ্যে ঘরগুলো বরাদ্দকৃতদের হস্তান্তর করা হতে পারে।

উপজেলার চাঁন্দুড়িয়া ইউনিয়নের গাগরন্দ গ্রামের ভূমিহীন শেফালী বেশরা বলেন, ‘দীর্ঘদিন পরের বাড়িতে থেকেছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জায়গাসহ ঘর দিচ্ছেন। এতে আমি খুবই খুশি। ছেলে মেয়েদের নিয়ে পাকা ঘরে থাকতে পারবো।’

উপজেলার বাধাইড় ইউনিয়নের জোতগোকুল গ্রামের শ্রীমতি রীনা রাণী,  আলোকছত্রা গ্রামের স্বামী পরিত্যাক্তা আমেনা খানম, তাঁতিহাটি গ্রামের কৃষক ওয়াসিম আলী বলেন, প্রধানমন্ত্রী ঘর উপহার দিচ্ছেন এতে আমরা খুবই আনন্দিত। অন্যের বাড়িতে ছেলে মেয়ে নিয়ে কষ্ট করে থেকেছি। এখন শান্তিতে থাকতে পারবো।

তানোর উপজেলা নির্বাহী অফিসার( ইউএনও) সুশান্ত কুমার মাহাতো বলেন, ‘ইতোমধ্যে ঘরগুলো নির্মাণের কাজ শেষ হয়েছে। প্রায় ৫০টি ঘরে টিন বসানো হয়েছে। এছাড়া কিছু ঘরে টিন বসানো ও রংয়ের কাজ বাকি আছে। আশা করি দ্রুত ঘরগুলোর কাজ শেষ করতে পারবো।  চলতি মাসের ১৫ জানুয়ারীর মধ্যেই বরাদ্দকৃত ঘরগুলোর কাজ শেষ হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে চলতি মাসের ২০ জানুয়ারী উপকারভোগী পরিবারের নিকট উক্ত গৃহ হস্তান্তরের কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন করবেন।’