প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় অপহরণ, দুই সপ্তাহেও উদ্ধার হয়নি কলেজছাত্রী

৩:৪৫ অপরাহ্ন | শনিবার, জানুয়ারী ১৬, ২০২১ ময়মনসিংহ
Jamalpur news

রকিব হাসান নয়ন, জামালপুর প্রতিনিধি: জামালপুরে প্রেমে রাজি না হওয়ায় জান্নাতুল মাওয়া তানজিয়া (১৭) নামে এক কলেজছাত্রীকে অপহরণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ১৩ দিনেও সন্ধান মেলেনি কলেজছাত্রী জান্নাতুল মাওয়া তানজিয়ার (১৭)।

অপহরণকারীরা তাকে পাশবিক নির্যাতনের পর হত্যা করে থাকতে পারে বলেও তার পরিবারের স্বজনরা শঙ্কা প্রকাশ করে উদ্বেগে রয়েছেন । অপহরণের ১৩ দিনেও পুলিশ অপহৃতা তানজিয়াকে উদ্ধার করতে পারেনি।

মামলা সূত্র জানায়,  গত ৩ জানুয়ারি জামালপুর সদরের দিগপাইত ইউনিয়নের জোয়ানেরপাড়া গ্রামের এখলাছুর রহমান তালুকদারের মেয়ে জান্নাতুল মাওয়া তানজিয়া নিজ বাড়ি থেকে অপহৃত হয় । একই ইউনিয়নের গান্দাইল এলাকার সফির উদ্দিনের ছেলে সাঈদ হাসান সিয়াম (২০) দীর্ঘদিন ধরে তানজিয়ার সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়তে তাকে নানাভাবে উত্যক্ত করে আসছিলো। তানজিয়া তার সাথে প্রেমের সম্পর্ক করতে চান, প্রস্তাব না মানলে তার পরিবারের সদস্যদের নানাভাবে ভয়-ভীতি ও হুমকি দেয়।

বিষয়টি জানাজানি হলে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা বখাটে সিয়ামকে উত্যক্ত না করতে সতর্কও করেছিলেন। কিন্তু বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হাওয়ায় গত ৩ জানুয়ারি সকালে সিয়াম ও তার লোকজন তানজিয়াকে জোরপূর্বক নিজ বাড়ি থেকে অপহরণ করে সিএনজিতে তোলে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় ছয়জনকে আসামি করে গত ৫ জানুয়ারি জামালপুর সদর থানায় মামলা দায়ের করেন অপহৃতা তানজিয়ার বাবা এখলাছুর রহমান তালুকদার। কিন্তু অপহরণের দশ দিনেও পুলিশ অপহৃতা তানজিয়াকে উদ্ধার করতে পারেনি।

তানজিনার বাবার অভিযোগ, অপহরণের দশ দিনেও পুলিশ তার মেয়ে তানজিয়াকে উদ্ধার করতে পারেনি। পুলিশের রহস্যজনক নিরবতার কারণে অপহরণ মামলার এজাহারভুক্ত তিনজন আসামি আদালত থেকে জামিন নিয়ে এলাকায় এসে মামলা তুলে নেওয়ার জন্য বাদীকে নানাভাবে হুমকি দিচ্ছে।

মামলাটির তদন্ত কর্মকর্তা স্থানীয় নারায়ণপুর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের উপপরিদর্শক (এসআই) মো. আব্দুল আলিম বলেন, মামলার তিন আসামি আদালত থেকে জামিন পেয়েছে। মামলার প্রধান আসামি সিয়ামসহ তিন আসামিকে গ্রেপ্তার ও অপহৃত কলেজছাত্রী তানজিয়াকে উদ্ধারে বিভিন্ন স্থানে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।