🕓 সংবাদ শিরোনাম
  • আজ সোমবার, ১৮ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ২ আগস্ট, ২০২১ ৷

গরিবদের আগে করোনার টিকা দিয়ে সরকার দেখবে মানুষ বাঁচে না মরে: রিজভী

rijvi-ahmed
❏ বুধবার, জানুয়ারী ২০, ২০২১ জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা- করোনার টিকা ভিআইপিদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে দেয়ার কোনো পরিকল্পনা নেই স্বাস্থ্যমন্ত্রীর- এমন বক্তব্যের সমালোচনা করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী।

তিনি বলেছেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেছেন, করোনা টিকা আসছে। এটা ভিআইপিরা অগ্রাধিকার ভিত্তিতে পাবে না। ওনারা ভিআইপিদের আগে গরিবদের ওপর প্রয়োগ করে গরিব বাঁচে না মরে দেখবেন। অথচ নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনও আগে করোনা টিকা নিয়েছেন। এমনকি দেশটির শীর্ষ সংক্রামক বিশেষজ্ঞ অ্যান্থনি ফাউচিও নিয়েছেন।

বুধবার (২০ জানুয়ারি) নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের ৮৫তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে জিয়াউর রহমান ফান্ডেশনের উদ্দ্যোগে বিনামূলে স্বাস্থ্য সেবার উদ্ধোধন কালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী নিজেরা তো নিরাপত্তার চাদরে ঢাকা থাকেন। ভাইরাস যেন কোনো ফাঁক দিয়ে ‘বেহুলার বাসর ঘরে সাপ ঢোকার মতো’ না ঢুকতে পারে প্রধানমন্ত্রীও ঠিক সেভাবেই আছেন। একইভাবে রয়েছেন ওবায়দুল কাদেরও। তাই ভিআইপিদের আগে গরিবদের উপর প্রয়োগ করে দেখবেন গরিবরা বাঁচে না মরে।

তিনি বলেন, আগে গরিব মানুষের ওপর এরা ভ্যাকসিন প্রয়োগ করবে। ভারতে এই ভ্যাকসিন নিতে গিয়ে কয়েক জায়গায় মানুষ মারা গেছেন। যদিও তারা বলেছেন, এটা ভ্যাকসিনের কারণে নয়। ভ্যাকসিন নেয়ার পর তো মারা গেছেনে। আর ওনারা বলে ভিআইপিরা আগে পাবে না।

রিজভী বলেন, যাদের কাছ থেকে ভ্যাকসিন নিচ্ছেন, তারা তো আপনাদেরকেই বন্ধু মনে করে। বাংলাদেশের আর কাউকে বন্ধু মনে করে না। তো এই ভ্যাকসিনের ওপর আমাদের সন্দেহ থাকবে না কেন? আমাদের সন্দেহ, সংশয় সব রয়েছে। যে দেশ কাছ থেকে আপনারা ভ্যাকসিন নিচ্ছেন তারাতো আমাদের বিশ্বাসের জায়গা হালকা করেছে। কারণ ওই দেশের পলিটিশিয়ানরা আওয়ামী লীগ ও আওয়ামী লীগ সরকারকেই বন্ধু মনে করে। আর সেই সরকারের মন্ত্রী বলেন, ভিআইপিরা আগে পাবে না। ভিআইপি কে? ভিআইপি হল মন্ত্রীরা, ভিআইপি হলো আমলারা আর ভিআইপি হলো এমপিরা।

বিএনপির এই মুখপাত্র বলেন, যদি পরিস্থিতি এই হয়, তাহলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী আপনি ভ্যাকসিন গবেষণা টেস্ট হিসেবে গরিবদের ব্যবহার করবেন না। আগে নিজেরা নিয়ে দেখেন। আপনাদের শরীরে কি প্রতিক্রিয়া হচ্ছে। তারপর গরিবদের দেয়ার চেষ্টা করেন।যদি দেখেন এটার যথাযথ উপকার হয় তারপর গ্রামে-গঞ্জে পাঠানোর ব্যবস্থা করুন।

রিজভী আরো বলেন, ‘জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশনের আয়োজিত ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প নিয়ে আমার বলার কিছু নেই। কী দিন, কী রাত! তারা সবসময় কম্বল বিতরণ করছে শীতার্তের মাঝে ওষুধ বিতরণ করছে। সরকারের এত অত্যাচার, জুলুমের পরও এরা পতাকা হাত থেকে ছাড়ছে না, এরা ধরেই রেখেছে। আমি এদের আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাই।’

টিকা প্রসঙ্গে ভোটের উদাহরণ টেনে এই বিএনপি নেতা বলেন, “আপনারা বলেছেন যে, ভোটকেন্দ্রের মত নাকি ভ্যাকসিনের কেন্দ্র করা হবে। তাহলে এই সরকারের যে বৈশিষ্ট্য– ভোট কেন্দ্রে ভোটাররা যেতে পারে না, সুষ্ঠু ভোট হয়, শুধু আওয়ামী লীগের লোকেরা গিয়ে ব্যালট বাক্স পূর্ণ করে।

“ভ্যাকসিনের কেন্দ্র যদি সারাদেশে সেরকম হয়, তাহলে তো তাই হবে। শুধু আওয়ামী লীগের লোক ও তাদের স্থানীয় নেতারা যাদেরকে সার্টিফাই করবেন, তারাই ভ্যাকসিন পাবে। এখানে সাধারণ জনগণ, এখানে ভিন্নমত, ভিন্ন দল এরা কেউ ভ্যাকসিনের সুবিধা পাবে না।”

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন