সংবাদ শিরোনাম

ছাত্রলীগ নেতার প্যান্ট চুরির ভিডিও ভাইরাল!পাটগ্রামে ইউএনও’র উপর হামলা, আটক ৬আগের সব রেকর্ড ভেঙ্গে একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু ৮৩ জনেরশফী হত্যা মামলা: মামুনুল-বাবুনগরীসহ ৪৩ জনকে অভিযুক্ত করে প্রতিবেদনখালেদা জিয়ার রোগমুক্তি কামনায় সারাদেশে দোয়া কর্মসূচিরোহিঙ্গা শিবিরে ফের অগ্নিকান্ডসালথায় তান্ডব: এসিল্যান্ডের বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগের সত্যতা মিলেনিশাহজাদপুরে কৃষকদের মাঝে হারভেস্টার মেশিন বিতরণচাঁদপুরে গণমাধ্যম সপ্তাহের রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি পেতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপিশ্রমিকদের যাতায়াতের ব্যবস্থা না করলে আইনি পদক্ষেপ : শ্রম প্রতিমন্ত্রী

  • আজ ৩০শে চৈত্র, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বিএনপির বুদ্ধি আছে কি না জানি না: ডা. জাফরুল্লাহ

৫:৩৪ অপরাহ্ন | বৃহস্পতিবার, মার্চ ৪, ২০২১ জাতীয়
jafor

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্ক- গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম আমলাতন্ত্রের মাধ্যমে গণতন্ত্র নিয়ন্ত্রণ করেছেন। আজ যে গণতন্ত্র আমলাতন্ত্র দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হচ্ছে এটা তার পরিকল্পনায়। আমি তার পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাই, তাকে শ্রদ্ধা জানাই।

আজ বৃহস্পতিবার (০৪ মার্চ) বিকেলে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে এইচ টি ইমামের নাগরিক শ্রদ্ধাঞ্জলি অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে তিনি একথা বলেন।

জাফরুল্লাহ বলেন, মুক্তিযুদ্ধের সময় প্রবাসী সরকার গঠনে তার গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। পরবর্তীসময়ে আমলারা যে পাত্রে যান সে পাত্রের আকার ধারণ করেছেন। তার সবচেয়ে বৈচিত্র্যময় কর্মক্ষমতা হলো আমলাতন্ত্রের মাধ্যমে গণতন্ত্র নিয়ন্ত্রণ করা।

এইচ টি ইমামের মৃত্যুকে বিএনপি কীভাবে দেখে- এমন প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, বিএনপির দেখার মতো এত বুদ্ধি আছে কিনা আমি জানি না। তিনি একজন ভালো আমলা, মুক্তিযুদ্ধে তার অবদান ছিল। ভিন্নমত থাকলেও তার ব্যবহার ছিল অত্যন্ত মধুর। বিএনপি তাকে ব্যবহার করতে পারেনি এটা বিএনপির ব্যর্থতা।

উল্লেখ্য, স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম মন্ত্রিপরিষদ সচিব ছিলেন ইমাম। তিনি পাকিস্তান সিভিল সার্ভিসের চাকরিতে ইস্তফা দিয়ে প্রবাসী বাংলাদেশ সরকারে যোগ দেন।

জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের সময় প্রবাসী সরকার গঠনে তার একটি অবস্থান রয়েছে। পরবর্তীতে, আমলারা যে পাত্রে যান সে পাত্রের আকার ধারণ করে।

‘তার সবচেয়ে বৈচিত্র্যময় কর্মক্ষমতা হলো আমলাতন্ত্রের মাধ্যমে গণতন্ত্র নিয়ন্ত্রণ করা। এটাকে যে যেভাবেই দেখুক, আজকে গণতন্ত্র নিয়ন্ত্রিত হচ্ছে আমলাতন্ত্র দ্বারা, সব পরিকল্পনাই তার। আমি তার পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাই, তাকে শ্রদ্ধা জানাই।’

মৃত্যুর পর এইচ টি ইমামের মরদেহ প্রথমে নেয়া হয় সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় গ্রামের বাড়িতে। সেখানে প্রথম জানাজার পর শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য আনা হয় ঢাকায়।