বেলকুচিতে লকডাইনেও বাল্যবিবাহের আয়োজন, বন্ধ করলেন ইউএনও

৬:২৬ অপরাহ্ন | মঙ্গলবার, এপ্রিল ৬, ২০২১ রাজশাহী
uno

উজ্জ্বল অধিকারী, বেলকুচি (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি: সিরাজগঞ্জের বেলকুচি উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের সমেশপুর গ্রামে করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় চলমান লকডাইনেও বাল্যবিবাহের আয়োজন করা হয়। খবর পেয়ে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে উক্ত বাল্যবিবাহ বন্ধ করেন বেলকুচি উপজেলার উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ আনিসুর রহমান।

জানা যায়, সোমবার সন্ধ্যায় সমেশপুর গ্রামের কনের বাড়ীতে সংগীয় আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী নিয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত উপস্থিত হন। তখন কনের বাড়ীতে কনে সমেশপুর গ্রামের নবম শ্রেণীর ছাত্রী (১৫) এর সাথে সিরাজগঞ্জ সদরের কাশিহাটা গ্রামের সিএনজি চালক (২০) এর বিয়ের আয়োজন চলছিল। কনে স্থানীয় বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর ছাত্রী।

বর ও কনে উভয়ই অপ্রাপ্তবয়স্ক। ভ্রাম্যমাণ আদালত বাল্যবিবাহ বন্ধ করে কনের মাতা ও বরের ভাই প্রত্যেককে ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা করেন এবং কনের মাতাকে বাল্যবিবাহের কুফল সম্পর্কে বুঝালে তিনি তার ভুল বুঝতে পারেন ও তার মেয়েকে প্রাপ্তবয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত বিবাহ দিবেন না বলে মুচলেকা দেন।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মোঃ ইলিয়াস হাসান শেখ, পেশকার মোঃ হাফিজ উদ্দিন ও আনসার বাহিনীর সদস্যবৃন্দ।