🕓 সংবাদ শিরোনাম

রোজিনার সঙ্গে যারা অন্যায় করেছে, তাঁদের জেলে পাঠান: ডা. জাফরুল্লাহকেরানীগঞ্জে ফ্ল্যাট থেকে যুবতীর অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধারপাটগ্রাম সীমান্তে অবৈধভাবে অনুপ্রবেশের দায়ে নারী ও শিশুসহ ২৪জন আটকসাংবাদিকদের ভয় দেখিয়ে সরকার গণমাধ্যমের কণ্ঠরোধ করতে চায়: ভিপি নুরসাংবাদিকদের বিরুদ্ধে মামলা নয়, দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিন: হানিফআর এমন ভুল হবে না: নোবেলস্বেচ্ছায় কারাবরণের আবেদন নিয়ে থানায় অনুসন্ধানী সাংবাদিকেরাইসরায়েলি আগ্রাসনের প্রতিবাদে রাস্তায় ঢাবি শিক্ষক সমিতিযমুনা নদীতে ডুবে তিন কলেজ ছাত্রীর মর্মান্তিক মৃত্যু‘বাংলাদেশে সাংবাদিকতাকে তথ্য চুরি বলা হচ্ছে, এর চেয়ে দুঃখ আর নেই’

  • আজ বুধবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ ৷ ১৯ মে, ২০২১ ৷

সব রেকর্ড ভেঙে ভারতে একদিনেই মৃত্যু ২৬২৪ জনের


❏ শনিবার, এপ্রিল ২৪, ২০২১ আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- ভারতে একদিনে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর রেকর্ড হয়েছে। দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ৬২৪ জনের। এ সময় নতুন করে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছে ৩ লাখ ৪৬ হাজার ৭৮৬ জন।

গেল বছরও ভারতে একদিনে করোনায় এত মানুষের মৃত্যু হয়নি। এ অবস্থায় দেশটির করোনা পরিস্থিতি ক্রমেই জটিল থেকে জটিলতর হচ্ছে বলে বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন।

ভারতে গত কয়েকদিন ধরে সংক্রমণ হুহু করে বাড়ছে। দেশটিতে এখন চিকিৎসাধীন করোনা রোগীর সংখা ২৫ লাখ ৫২ হাজার ৯৪০ জন। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা প্রতিনিয়ত বাড়তে থাকায় হাসপাতালগুলোতে রোগীর জায়গা দেওয়া সম্ভব হয়ে উঠছে না। সব মিলিয়ে ভারতের করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ। তবে এ অবস্থাতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনামুক্ত হয়েছেন ২ লাখ ১৯ হাজার ৮৩৮ জন।

করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ শুরু হওয়ার পর থেকেই ভারতজুড়ে দেখা দেয় অক্সিজেন সঙ্কট। শুক্রবারও দেশটির কয়েকটি হাসপাতালে অক্সিজেন সংকটে বেশ কয়েকজন রোগী মারা গেছে।

মহারাষ্ট্রসহ কয়েকটি রাজ্যের হাসপাতালগুলোতে এখন শুধুই করোনা রোগী। তীব্র সংকট রয়েছে আইসিইউ বেডের। এরই মধ্যে শুক্রবার পশ্চিমবঙ্গে নির্বাচনি প্রচারে যোগ দেয়ার কথা ছিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির। তবে শেষ পর্যন্ত তিনি সেই সফর বাতিল করেন।

রাজ্যগুলোর মুখ্যমন্ত্রীদের নিয়ে কেন্দ্র থেকে শুক্রবারই বৈঠক করেন নরেন্দ্র মোদি। সেই বৈঠকের পুরোটাই করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার বিষয় উঠে আসে বলে দেশটির বিভিন্ন গণমাধ্যমে উঠে এসেছে।

দেশটিতে করোনার সংক্রমণ সবচেয়ে বেশি মহারাষ্ট্রে। গত এক দিনে সেখানে আরও ৬৬ হাজার ৮৩৬ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। উত্তর প্রদেশে ৩৬ হাজার ৬০৫ জন, কেরালায় ২৮ হাজার ৪৪৭ জন, কর্ণাটকে ২৬ হাজার ৯৬২ এবং দিল্লিতে শনাক্ত হয়েছে ২৪ হাজার ৩৩১ জনের শরীরে।

এ ছাড়া করোনা সংক্রমণ লাফিয়ে বাড়ছে তামিলনাডু, অন্ধ্র প্রদেশসহ কয়েকটি রাজ্যে।