🕓 সংবাদ শিরোনাম

চুয়াডাঙ্গায় ৬ বছ‌রের শিশুকে ধর্ষণ, অভিযুক্ত যুবক গ্রেফতারলাথি দেওয়া সেই শিক্ষক ছেলের আইনানুগ বিচার চান বাবামানিকগঞ্জে ধর্ষণ মামলায় চেয়ারম্যান গ্রেফতারহামলা ঠেকাতে প্রশাসন ব্যর্থ নাকি গাফিলতি, প্রশ্ন ইনুরগোপালগঞ্জে পিকআপ ভ্যান ও নসিমনের মধ্যে সংঘর্ষে নিহত ২লিটারে ৭ টাকা বাড়ল সয়াবিন তেলের দামযুবলীগ চেয়ারম্যানের নম্বর ক্লোন করে প্রতারণা, মূলহোতাসহ গ্রেফতার ২ফেসবুকে প্রধানমন্ত্রীর বিকৃত ছবি শেয়ার করায় সাংবাদিক গ্রেপ্তারহিন্দু ভাই-বোনদের ভয় নাই, পাশি আছি: ওবায়দুল কাদেরসহিংসতায় দায়ীদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

  • আজ বুধবার, ৪ কার্তিক, ১৪২৮ ৷ ২০ অক্টোবর, ২০২১ ৷

শিক্ষা বোর্ডের নাম ভাঙ্গিয়ে বিকাশে প্রতারণার নতুন ফাঁদ

Bkash-Protaroana
❏ সোমবার, মে ৩, ২০২১ ঢাকা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, সময়ের কণ্ঠস্বর:  বিকাশের মাধ্যমে প্রতারণার নতুন ফাঁদ তৈরী করে গ্রাহকদের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে প্রতারক চক্র। তারা শিক্ষা বোর্ডে নাম ব্যবহার করে এ প্রতারনাটি করছে বিকাশ গ্রাহকদের সাথে।

সোমবার (৩ মে) বিকেলে প্রতারকদের ফাঁদে পড়ে এক শিক্ষার্থী খুইয়েছেন বিকাশ একাউন্টের রক্ষিত বেশ কিছু টাকা।

নাম না প্রকাশ করার শর্তে ওই শিক্ষার্থী জানান, তিনি গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের টঙ্গী সরকারি কলেজ থেকে ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষ ২০১৮ সালে পরীক্ষায় অংগ্রহণ করেন। রেজাল্ড পাবার পর তিনি আর কলেজে যোগাযোগ করেন নি। চলতি বছরের ২১ এপ্রিল সন্ধ্যায় তার ব্যাক্তিগত মোবাইল নাম্বারে একটি এসএমএস আসে। যেখানে লেখা রয়েছে Dear Student’s To get Scholarship tk 4,200 please contact 01813834213, 01880589395 Education Board ০১৮১৩৮৩৪২১৩, ০১৮৮০৫৮৯৩৯৫। এর কয়েক দিন পরে তিনি প্রতারকদের দেয়া নাম্বারের যোগাযোগ করেন। প্রথমে প্রতারকরা ফোন রিসিভ করেনি। আবার মাঝে মাঝে ফোন দীর্ঘ সময় ওয়েটিং দেখাতো আবার নাম্বার গুলো বন্ধও থাকতো।  একপর্যায়ে ৩ মে সোমবার বিকেলে প্রতারকদের নাম্বার ফের কল করলে ফোনটি রিসিভ হয়। এ সময় প্রতারকরা ওই শিক্ষার্থীকে বলে একটি বিকাশ নাম্বার দিতে এবং অন্য নাম্বার থেকে ফোন করে বিকাশ নাম্বারটি ফ্রি রাখতে বলে। এ বিকাশ নাম্বারটি দিলে প্রতারকরা ০১৭৪০০০১৯০২ নাম্বার ১০টাকা বিকাশ করতে বলে। ১০টাকা পাঠানোর পর ওই নাম্বারে একটি একটি এসএমএ আসে। পরবর্তীতে ওই এসএমএসটি শিক্ষাবোর্ডে কথা বলে দেয়া ০১৯৭৫৮২৪০৭১ নাম্বারে ফরওয়ার্ড চাইলে তিনি তাও করেন। এরপরেই ০১৭৬০১৯৮৭৩৬ নাম্বার থেকে ফোন আসলে রিসিভ করতে বল্লেই শিক্ষার্থীর সন্দেহ হলে তিনি ফোনটি রিসিভ করেন নি। কিন্তু তার পরেই কয়েক মুহুর্তেই ওই বিকাশে রক্ষিত টাকা গুলো প্রতারক চক্র হাতিয়ে নেয়।

এ বিষয়ে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার জাকির হাসান জানান, লোভে পড়ে কেউ যেন প্রতারকদের ফাঁদে পা না দেন। প্রয়োজনে নিজ নিজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যোগাযোগ করে খোঁজ খবর নিয়ে নেন। এছাড়া আরো অনেক ভাবে প্রতারকরা ফাঁদ পাততে পারে। এ ব্যপারে সবাইকে সচেতন হতে হবে। যারা ভুক্তভোগী আছে এ বিষয়ে কেউ যদি অভিযোগ করেন তাহলে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন