🕓 সংবাদ শিরোনাম

নোয়াখালীতে ২৪ ঘন্টায় ১১৫ জনের দেহে করোনা, শনাক্তের হার ২৮.৬ শতাংশসৌদিতে অবৈধভাবে প্রবেশ করলে ১৫ বছরের জেল ও জরিমানার ঘোষণামাদারীপুরে নির্বাচনী সহিংসতায় আহত শ্রমিকলীগ সভাপতির মৃত্যুভয়ংকর হচ্ছে খুলনা বিভাগ, একদিনেই রেকর্ড ৩২ জনের মৃত্যুটাঙ্গাইলে নতুন করে ১৪৯ জন করোনায় আক্রান্ত, ৩ জনের মৃত্যুইভ্যালিসহ ১০ ই-কমার্সে কেনাকাটায় নিষেধাজ্ঞা দিলো ব্র্যাক ব্যাংকনওমুসলিম ওমর ফারুক হত্যার প্রতিবাদে মানববন্ধন-সংবাদ সম্মেলন, ৬ দফা দাবিআ.লীগ অতীতে জনগণের সঙ্গে ছিল, ভবিষ্যতেও থাকবে : কাদের২৪ ঘন্টায় রাজশাহী মেডিকেলের করোনা ওয়ার্ডে ১৬ জনের মৃত্যুইভ্যালির সম্পদ ৬৫ কোটি, দেনার পরিমাণ ৪০৩ কোটি ৮০ লাখ টাকা

  • আজ বুধবার, ৯ আষাঢ়, ১৪২৮ ৷ ২৩ জুন, ২০২১ ৷

শিমুলিয়ায় ফেরি বন্ধ, পারাপারের অপেক্ষায় শত শত যানবাহন

car
❏ বৃহস্পতিবার, মে ২৭, ২০২১ ঢাকা

মোঃ রুবেল ইসলাম তাহমিদ, মুন্সীগঞ্জ- ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের প্রভাবে পদ্মা নদী উত্তাল থাকায় মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া ও মাদারীপুরের বাংলাবাজার গেল দুদিন ধরে সব ধরণের নৌযান চলাচল বন্ধ রেখেছে কর্তৃপক্ষ। ফেরি বন্ধ থাকায় আজ বৃহস্পতিবার শিমুলিয়া ঘাটে পারাপারের অপেক্ষায় রয়েছে সাড়ে সাত শতাধিক যানবাহন। ফলে ঘাটে এসে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলমুখী যাত্রী ও পরিবহনশ্রমিকেরা।

ঘাট কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয় লোকজন বলেন, বৈরী আবহাওয়ার কারণে বৃহস্পতিবারও পদ্মা নদীতে ঝোড়ো বাতাস বয়ে যাচ্ছে। নদীতে প্রবল বাতাসের কারণে বড় বড় ঢেউয়ের সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়া তীব্র স্রোতও বয়ে যাচ্ছে। গতকাল বুধবার সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে শিমুলিয়া ঘাট থেকে একটি রো রো ফেরি ছাড়া হলেও আজ বৃহস্পতিবার এখন পর্যন্ত শিমুলিয়া ঘাট থেকে আর কোনো ফেরি ছাড়া হয়নি।

এখনো বাতাসের কারণে বড় বড় ঢেউ আছড়ে পড়ছে শিমুলিয়া ঘাটের পন্টুনগুলোতে। বুধবার ঢেউয়ের কারণে সকাল আটটার দিকে ২ নম্বর ফেরিঘাটের পন্টুনটি বিচ্ছিন্ন হয়ে দুই ভাগ হয়ে যায়। ভেঙে যাওয়া পন্টুনটি বেঁধে রাখা হয়েছে। সেদিন সকাল থেকে পদ্মায় ঢেউয়ের কারণে লঞ্চ চলাচল বন্ধ রাখা হয়।

শিমুলিয়া ঘাটের ট্রাফিক পুলিশ পরিদর্শক (টিআই) মো. জাকির হোসেন সকাল পৌনে ১২টার দিকে বলেন, গতকাল বুধবার সকাল ছয়টা থেকে ফেরি চলাচল বন্ধ রয়েছে। এর ফলে ঘাটে এসে অসংখ্য ছোট-বড় যানবাহন জড়ো হয়েছে। বর্তমানে প্রায় ৭ শতাধিক যানবাহন পারাপারের অপেক্ষায় আছে। এসব যানবাহনের মধ্যে মালবাহী ট্রাক ও কাভার্ড ভ্যানের সংখ্যাই বেশি। এছাড়া ছোট গাড়ি ও বাস রয়েছে।

শিমুলিয়া ঘাটের বিআইডব্লিউটিসির সহকারী মহাব্যবস্থাপক শফিকুল ইসলাম বলেন, পরিস্থিতি ঠিক না হওয়া পর্যন্ত শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌপথে ফেরি চলাচল অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ থাকবে। ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের কারণে পদ্মা নদীতে প্রবল স্রোতের সৃষ্টি হয়েছে। এ কারণে ২ নম্বর ঘাটের পন্টুন বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। আবহাওয়া স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত সেটি মেরামত করা সম্ভব হচ্ছে না। এ অবস্থায় এই নৌপথ ব্যবহারকারীদের মাইকিংয়ের মাধ্যমে নিরাপদ স্থানে চলে যেতে বলা হয়েছে। একই সঙ্গে তাঁদের বিকল্প পথ ব্যবহারের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, নদীতে প্রচণ্ড বাতাস, ঢেউ ও স্রোত রয়েছে। আবহাওয়া স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত ফেরি চলাচল বন্ধ থাকবে।