• আজ বুধবার, ১৩ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ২৮ জুলাই, ২০২১ ৷

চুরি করতে এসে তিন মাসের কন্যা শিশুকে পানিতে ফেলে হত্যা


❏ বৃহস্পতিবার, জুলাই ৮, ২০২১ দেশের খবর, বরিশাল
এস আই মুকুল, নিজস্ব প্রতিবেদক:
ভোলা সদর উপজেলায় গভীর রাতে মঞ্জুর আলম নামে এক দিনমজুরের ঘরে চুরি করতে এসে মারিয়া বেগম নামে তিন মাস বয়সী এক কন্যা শিশুকে পানিতে ফেলে হত্য করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
নিহত মারিয়া উপজেলার পশ্চিম ইলিশা ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের পাঙ্গাশিয়া গ্রামের মঞ্জুর আলমের মেয়ে।
মঙ্গলবার দিবাগত রাতে মঞ্জুর আলমের বাড়িতে এ মর্মান্তিক হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে।
পুলিশ ও নিহতের পরিবার জানায়, মঙ্গলবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে ঘরের সামনের দরজা খুলে কালো পোশাক পরিহিত চার জন লোক ঘরে প্রবেশ করে। এসময় মঞ্জুর আলমের স্ত্রী শাহনাজ বেগম বিষয়টি টের পেলে তারা শাহনাজের মুখ ও হাত-পা বেধে ফেলে। একপর্যায়ে শাহানাজের তিন মাসের ঘুমন্ত শিশু মারিয়া জেগে কান্নাকাটি শুরু করলে চুরি করতে আসা লোকজন তাকে ঘরের পিছনের পুকুরে ফেলে দেয়। এসময় তারা ঘরে থাকা ১২শ’ টাকা ও এক ভরি ওজনের স্বর্নলংকার নিয়ে চলে যায়।
তারা চলে যাওয়ার পর শাহনাজের কান্নার শব্দ শুনে স্বামী মঞ্জুর আলম ও শ্বাশুড়ি সজাগ হয়ে শাহনাজের হাত পায়ের বাঁধন খুলে দেয়। পরে শিশু মারিয়াকে ঘরের বিভিন্ন যায়গায় খোজাখুজি করে না পেয়ে ঘরের পিছনের পুকুর পাওয়া যায়। সেখানে পুকুর থেকে শিশু মারিয়াকে মৃত উদ্ধার করে। এ অবস্থায় রাত ৩টার দিকে তাদের ডাক-চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে আসে।
সকালে বিষয়টি পুলিশকে জানানো হলে ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন ও তদন্ত (ওসি) আরমান হোসেনসহ পুলিশের কয়েকজন কর্মকর্তা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ময়নাতদন্তের জন্য শিশুটির মরদেহ নিয়ে আসে এবং জিজ্ঞাসাবাদের জন্য শিশুটির বাবা ও মাকে থানায় নিয়ে আসে।
ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. এনায়েত হোসেন জানান, আমরা ঘটনাটি শুনে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি এবং ময়নাতদন্তের জন্য নিহত শিশুর মরদেহ উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।  বিষয়টি তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন