• আজ মঙ্গলবার, ১৯ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ৩ আগস্ট, ২০২১ ৷

দেশে একদিনে দুই শতাধিক মৃত্যুর পরও কেরানীগঞ্জে মানুষের অবাধ চলাচল

Keranigonj news
❏ বৃহস্পতিবার, জুলাই ৮, ২০২১ ঢাকা

মাসুম পারভেজ, কেরানীগঞ্জ প্রতিনিধি: স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষা করে রাস্তায় বাড়ছে জনসমাগম। সেই সঙ্গে সারাদেশে প্রতিদিন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। করোনায় আক্রান্ত হয়ে একদিনে মৃত্যুর রেকর্ড বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ শতাধিক। এ পর্যন্ত মারা গেছে ১৫ হাজার ৫৯৩ জন।

লকডাউনের অষ্টম দিন বৃহস্পতিবার সকালে ঢাকা কেরানীগঞ্জের কদমতলি গোলচত্ত্বর, হাসনাবাদ, আব্দুল্লাহপুর, ধলেশ্বরী ব্রিজ এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, গণপরিবহন না চললেও আগের দিনগুলোর তুলনায় সড়কে মানুষের সঙ্গে ব্যক্তিগত গাড়ি, ট্রাক, কাভার্ড ভ্যান, পিকআপ চলাচলও বেড়েছে। অনেকটা অবাধেই চলছে ব্যক্তিগত গাড়ি। এর সঙ্গে ভাড়ায়চালিত মোটরসাইকেলেও যাত্রী নিয়ে চলাচল করতে দেখা যাচ্ছে। যেসব এলাকায় বিশেষ অভিযান চলছে না, সেখানে এসব ব্যক্তিগত গাড়ি, ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেল চলাচলে কোনো ধরনের বাধা পেতে দেখা যায়নি।

এদিকে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করলেও ব্যাংক, বীমা, শেয়ারবাজার, গার্মেন্টস সহ বিভিন্ন শিল্প কারখানা চালু রয়েছে। ফলে কর্মজীবী মানুষগুলোকে প্রতিদিন অফিসে ছুটতে হচ্ছে।

বিভিন্ন চেকপোস্টে দেখা যায়, ছোট-বড় প্রতিটি গাড়িতেই চেকিংয়ের আওতায় আনা হচ্ছে। যৌক্তিক কারণ দেখাতে পারলে যেতে দেওয়া হচ্ছে, অন্যথায় মামলা করা হচ্ছে।

চেকপোস্টের পুলিশ সদস্যরা জানান, মানুষ বাইরে বের হওয়ার যেসব কারণ দেখাচ্ছেন তাতে বেশিরভাগকেই আটকানো যাচ্ছে না। তবে কারও উত্তর সন্তোষজনক না হলে আবার জিজ্ঞাসা করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, দেশে করোনা সংক্রমণ ভয়াবহ আকার ধারণ করলে সরকার গত ১ জুলাই থেকে সাতদিনের কঠোর বিধিনিষেধ জারি করে। দেওয়া হয় ২১টি নির্দেশনা। বিধিনিষেধের সপ্তমদিন পার হতে চললেও করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতির উন্নতি হয়নি। কিন্তু সেই বিধিনিষেধের মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা ছিলো বুধবার (৭ জুলাই) মধ্যরাতে। এরমধ্যে বিধিনিষেধ আরও এক সপ্তাহ বাড়ানোর সুপারিশ করে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটি। এই প্রেক্ষাপটে বিধিনিষেধের মেয়াদ আরও এক সপ্তাহ বাড়ানো হয়েছে।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন